লাবসায় মাদক ব্যবসায়ীর হাতে দু’জন আহত!


প্রকাশিত : মার্চ ২১, ২০১৭ ||

নিজস্ব নিজস্ব: লাবসা ইউনিয়নের দাশপাড়া মসজিদ সংলগ্ন এলাকায় আব্দুর লতিফ নামের এক মাদক ব্যবসায়ী উত্তর কাটিয়ার আব্দুল আজীজের পুত্র মেহেদী হাসান ফয়সাল ও মৃত আরশাদ সরদারের পুত্র রাসেল সরদারকে বেধড়ক পিটিয়ে আহত করেছে। ঘটনাটি ঘটে সোমবার ভোর ৬টার দিকে। আহত ফয়সাল জানান, লতিফ ও সে একই এলাকার বাসিন্দা। মাদক ব্যবসার জন্য প্রায় হাজতবাস করেন লতিফ। সমগ্র দেশের মাদক উৎখাতের অভিযান চলাকালে রোববার রাতে লতিফের বাড়িতে পুলিশ যাওয়ায় সে তাকে দোষারোপ করে এবং বিভিন্ন প্রকার হুমকি ধামকি দিতে থাকে। পরের দিন (সোমবার) ভোরে বাড়ির সামনে আমি ও আমার বন্ধু রাসেল কথা বলার সময় লতিফ দ্রুত গতিতে সাইকেল চালিয়ে এসে পেছনে ধাক্কা দিলে আমি মুখ থুবড়ে পড়ে যাই। ঘটনা বুঝতে পেরে আমি দৌড়ে পালাতে সক্ষম হলেও আমার বন্ধু রাসেলকে সে বাগে পেয়ে যায় এবং তার কাছে থাকা লোহার হাতুড়ি দিয়ে রাসেলকে এলোপাথাড়িভাবে মারতে শুরু করে। আহত রাসেল মাটিতে লুটিয়ে পড়লে স্থান ত্যাগ করে লতিফ।
নাম প্রকাশ না করার শর্তে স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, দীর্ঘ এক যুগ ধরে মাদকের ব্যবসা চালাচ্ছে এই মাদক ব্যবসায়ী। কিন্তু তার উগ্র আচরণের কারণে কেউ প্রতিবাদ জানাতে পারে না। তার বাড়িতেই চলে গাঁজা, ইয়াবা ও ফেন্সিডিলের রমরমা ব্যবসা যা এখন ওপেন সিক্রেট। এসব করে বাড়ির পাশে খদ্দেররা বিভিন্ন সময় মাদক কিনতে এসে এই এলাকায় বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করে যার ফলস্বরূপ সাধারণ যুবকদের ঐ এলাকা দিয়ে যাতায়াতকালে পুলিশি হয়রানির শিকার হতে হয়। বর্তমানে প্রশাসনিক কড়াকড়ি থাকার কারণে সে তার স্ত্রীকে দিয়ে মাদক বিক্রি করায় এবং বাড়ির পাশে বিভিন্ন স্থানে মাদক লুকিয়ে রাখে। তার একটি চক্র আছে যারা তাকে মাদক ব্যবসায় সহযোগীতা করে, দালালী করে বেশ ভালোই উর্পাজন করছে। এদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করে আইনের আওতায় আনার জন্য প্রশাসনের দৃষ্টি কামনা করেছে এলাকাবাসি।