২৭ বছর পর এমন লজ্জার হার দেখল রিয়াল মাদ্রিদ!


প্রকাশিত : October 30, 2017 ||

অবশেষে জয়রথ থামলো রিয়াল মাদ্রিদের। টানা ১৩ অ্যাওয়ে ম্যাচ জয়ের পর রোববার পরাজয় দেখল জিনেদিন জিদানের দল। তাও আবার পুঁচকে জিরোনার কাছে! ২-১ গোলের লজ্জাজনক পরাজয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছেন রামোস-রোনালদোরা।

দীর্ঘ ২৭ বছর পর নবাগত কোনো দলের বিপক্ষে মুখোমুখি হয়ে প্রথম ম্যাচেই হেরেছে রিয়াল মাদ্রিদ। এর আগে ১৯৯০ সালে স্প্যানিশ লা লিগায় উন্নীত হওয়া রিয়াল বার্গোসের বিপক্ষে ম্যাচে হেরেছিল লস ব্ল্যাঙ্কোসরা।

তবে ম্যাচের শুরুটা কিন্তু দারুণভাবেই করেছিল রিয়াল মাদ্রিদ। প্রথমার্ধের ১২ মিনিটেই এগিয়ে যায় জিনেদিন জিদানের দল। গোলদাতা দুর্দান্ত ফর্মে থাকা ইস্কো। করিম বেনজেমার বাড়ানো বল ধরে ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর শট গোলরক্ষক ফিরিয়ে দেন জিরোনার গোলরক্ষক। আর সামনে থাকা ইসকো সেই সুযোগটি কাজে লাগান নিখুঁত টোকায়।

তবে হাল ছাড়েনি স্বাগতিক জিরোনা। রিয়ালের আক্রমণের জবাব দেয় তারাও। কিন্তু দারুণ খেলা উপহার দিলেও ফিনিশিংটা ভালো করতে পারেনি স্বাগতিকরা। এর ফলে ১ গোলে পিছিয়ে থেকেই বিরতিতে যায় তারা।

দ্বিতীয়ার্ধেই ভিন্নরুপে আবির্ভাব ঘটে জিরোনার। মাত্র চার মিনিটের ব্যবধানেই দুবার বল জালে পাঠিয়ে রিয়াল মাদ্রিদ সমর্থকদের হতভম্ব করে দেয় তারা। ৫৪ মিনিটে প্রথম গোলটির কারিগর পেরে পন্স। ডান দিক থেকে রিয়াল মাদ্রিদের তিন জনকে কাটিয়ে স্প্যানিশ এই মিডফিল্ডারের ডি-বক্সে বাড়ানো বল নাচো ফার্নান্দেসের পায়ে লেগে পেয়ে যান ক্রিস্তিয়ান স্টুয়ানি। নাচোকে কাটিয়ে দুর্দান্ত শটে রিয়ালের জালে বল জড়ান এই উরুগুইয়ান ফরোয়ার্ড।

তার চার মিনিট পর আবারও গোল হজম করে বসে রিয়াল মাদ্রিদ! এই গোলেও ভূমিকা আছে স্টুয়ানির। তার শট কাসিয়া ঠেকালেও ফিরতি বলে মাফেও কোনাকুনি শটে ব্যাকহিলে বল জালে পাঠান স্প্যানিশ মিডফিল্ডার ক্রিস্তিয়ান পোর্তু। তবে দ্বিতীয়ার্ধে বেশ কয়েকটি সুযোগ পেয়েছিল রিয়াল মাদ্রিদ। কিন্তু সেগুলোকে কাজে লাগাতে ব্যর্থ হয় জিনেদিন জিদানের শিষ্যরা। যে কারণে লজ্জাজনক হার নিয়েই মাঠ ছাড়তে হয় তাদের।

লা লিগার ইতিহাসের অন্যতম সেরা ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদ। ৮৫টি মেজর শিরোপা জয়ের অবিস্বরণীয় রেকর্ড তাদের দখলে। অন্যদিকে জিরোনা এখন পর্যন্ত বড় কোন টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়নই হতে পারেনি। রিয়ালের এই দলটার মূল্য হলো ৬৫৭ মিলিয়ন পাউন্ড। তাহলে জিরোনার? মাত্র ৩৭ মিলিয়ন! অথচ এই জিরোনাই রোনালদো-বেনজেমাদের হারিয়ে দিল।

চলতি মৌসুমের প্রথম ১০ ম্যাচ থেকে দ্বিতীয় পরাজয়ের স্বাদ পেল রিয়াল মাদ্রিদ। ২০ পয়েন্ট নিয়ে লিগ টেবিলের তৃতীয় স্থানে রয়েছে তারা। সমান পয়েন্ট নিয়ে চতুর্থ স্থানে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ। শনিবার অ্যাথলেটিক বিলবাওকে ২-০ গোলে হারানো বার্সেলোনা যথারীতি শীর্ষে। তাদের দখলে ২৮ পয়েন্ট। কাতালানদের চেয়ে ৪ পয়েন্ট কম নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে ভ্যালেন্সিয়া।