কালিগঞ্জের মুক্তিযোদ্ধা সন্তান নুরুল উদ্ধার


প্রকাশিত : জানুয়ারি ১২, ২০১৮ ||

 

দেবহাটার আওয়ামী লীগ নেতা রতন হত্যা চেষ্টা মামলায় কারাগারে প্রেরণ

নিজস্ব প্রতিনিধি: মঙ্গলবার পুলিশের হাতে আটক ও চোখ বেঁধে নির্যাতন করা মুক্তিযোদ্ধা সন্তান নুরুল মোড়লকে দেবহাটার আওয়ামী লীগ নেতা ফারুক হোসেন রতন হত্যা চেষ্টা মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে বৃহষ্পতিবার বিকেলে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। নুরুল মোড়ল সাতক্ষীরার কালিগঞ্জ উপজেলার বন্দকাটি গ্রামের মৃত মুক্তিযোদ্ধা আরশাদ আলী মোড়লের ছেলে।

দেবহাটা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কাজী কামাল হোসেন জানান, গত ২ জানুয়ারি রাত সাড়ে ৮টার দিকে মোটর সাইকেলে বাড়ি ফেরার সময় সখীপুর প্রাইমারী স্কুলের পাশে রতনকে গুলি করে জখম করা হয়। এ ঘটনায় গত  সোমবার তার মা মিনা বেগম উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক আব্দুল আজিজ, উপজেলা ছাত্রলীগের সাংগঠণিক সম্পাদক শাহীদুজ্জামান ওরফে সাদ্দাম ও সখীপুর ইউপি’র সাবেক চেয়ারম্যান মঈনুদ্দিন ময়নার নাম উল্লেখ করে থানায় একটি হত্যা প্রচেষ্টার মামলা দায়ের করেন।

মঙ্গলবার এ মামলায় সাদ্দাম, জেলা ছাত্র শিবিরের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল গফুর ও তালা উপজেলার জালালপুর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শিমুল মোড়লকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়।

একইভাবে এ মামলায় সন্ধিগ্ধ আসামী হিসেবে কালিগঞ্জের বন্দকাটি গ্রামের নুরুল মোড়লকে বুধবার রাতে গ্রেফতার করে বৃহষ্পতিবার আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। তার রিমা- আবেদন জানানো হবে বলে জানান।

প্রসঙ্গত, মঙ্গলবার দুপুর আড়াইটার দিকে কালিগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক হেকমত আলীর নেতৃত্বে সঙ্গীয় ফোর্স নিজের মাছের ঘের থেকে নুরুলকে আটক করে চোখ বেঁধে শাওন ফিস এ নিয়ে  বেধড়ক পেটায়। এরপর পর তার গ্রেপ্তারের বিষয়ে পুলিশ অস্বীকার করায় বুধবার সংবাদ সম্মেলন হলে বৃহস্পতিবার নুরুলকে একটি মামলায় গ্রেপ্তার দেখায়।