নলতা কেন্দ্রীয় আহ্ছানিয়া মিশনে আলোচনা সভা


প্রকাশিত : সেপ্টেম্বর ১৩, ২০১৮ ||

আহাদুজ্জামান আহাদ : অবিভক্ত বাংলার শিক্ষা বিভাগের সহকারী পরিচালক, বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ, শিক্ষা ও সমাজ সংস্কারক, সাহত্যিক, দার্শনিক, সুফী-সাধক, পীরে কামেল সুলতানুল আউলিয়া কুতুবুল আকতাব গওছে জামান আরেফ বিল্লাহ হজরত শাহ্ছুফী আলহাজ্জ খানবাহাদুর আহ্ছানউল্লা (র.) এঁর প্রথম কর্মস্থল রাজশাহী কলেজিয়েট স্কুল ও রাজশাহী থেকে আগত কয়েকজন বিশিষ্ট গুনীজন ও তাদের স্বজনরা নলতা শরীফে পীর কেবলার মাজার শরীফ জিয়ারত এবং পরিদর্শন উপলক্ষে বিশেষ আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। নলতা কেন্দ্রীয় আহ্ছানিয়া মিশনের সার্বিক ব্যবস্থাপনায় ও পাক রওজা শরীফের শ্রদ্ধেয় খাদেম আলহাজ্জ মৌলভী আনছার উদ্দিন আহমদ’র বিশেষ দিক নির্দেশনায় বুধবার সকাল সাড়ে ৮টায় কেন্দ্রীয় আহ্ছানিয়া মিশন ভবনের ৩য় তলায় অনুষ্ঠিত উক্ত সভায় সভাপতিত্ব করেন নলতা কেন্দ্রীয় আহ্ছানিয়া মিশনের সভাপতি আলহাজ্জ মুহাম্মদ সেলিমউল্লাহ। কেন্দ্রীয় আহ্ছানিয়া মিশনের নির্বাহী সদস্য আলহাজ্জ আবুল ফজল শিক্ষকের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত বিশেষ আলোচনা সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন নলতা কেন্দ্রীয় আহ্ছানিয়া মিশনের যুগ্ম-সম্পাদক সাইদুর রহমান শিক্ষক। অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন রাজশাহী কলেজিয়েট স্কুলের অধ্যক্ষ ড. নুর জাহান বেগম, গবেষক ও সাহিত্যিক প্রফেসর ড. তসিকুল ইসলাম রাজা, প্রফেসর রুহুল আমিন প্রামাণিক, রাজশাহী পুলিশ লাইন স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ ড. মো. গোলাম মাওলা। ছুফীজম সম্পর্কে আলোচনা করেন নলতা শরীফ শাহী জামে মসজিদের খতিব আলহাজ্জ মাওলানা মো. আবু সাঈদ, খানবাহাদুর আহ্ছানউল্লা ও রাজশাহী প্রসঙ্গে আলোচনা রাখেন, খানবাহাদুর আহ্ছানউল্লা ইন্সটিটিউটের গবেষক প্রভাষক মো. মনিরুল ইসলাম, চট্টগ্রাম আহ্ছানিয়া মিশনের রাশেদ আহমেদ চৌধুরী এবং আহ্ছানিয়া মিশন সম্পর্কে আলোচনা রাখেন আমেরিকা প্রবাসী এহছানুল হক। আরো উপস্থিত ছিলেন নলতা কেন্দ্রীয় আহ্ছানিয়া মিশনের সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্জ মো. আব্দুল মজিদ, কেন্দ্রীয় আহ্ছানিয়া মিশনের কর্মকর্তা মালেকুজ্জামান, আলহাজ্জ মোহাম্মদ ইউনুস, আলহাজ্জ ডা. আকবর হোসেন, শফিকুল আনোয়ার রঞ্জু, এনামুল হক খোকন, আনছার আলী, শফিকুল হুদা, খায়রুল হাসান. মুজিবর রহমান, নলতা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আনোয়ারুল হক, নলতা মোবারকনগর বাজার কমিটির সম্পাদক ও নলতা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আনিছুজ্জামান খোকন, সরকারি খানবাহাদুর আহ্ছানউল্লা কলেজের প্রভাষক মনিরুজ্জামান মহসিন, হাফেজ হাবিবুর রহমান। সভায় আগত অতিথিবৃন্দ বক্তব্যকালে নলতা কেন্দ্রীয় আহ্ছানিয়া মিশনের পক্ষ থেকে আতিথেয়তা, মার্জিত ব্যবহার, তাদের মূল্যায়নসহ সার্বিক বিষয়ে অভিভূত হওয়ার কথা ব্যক্ত করেন। পাশাপাশি পীর কেবলা হজরত খানবাহাদুর আহ্ছানউল্ল (র.) প্রথম যে রাজশাহী কলেজিয়েট স্কুলের প্রধান শিক্ষক ছিলেন সেই স্কুলে বর্তমানে অনুদোন পাওয়া ৬ তলা বিশিষ্ট নতুন ভবনটি হজরত খানবাহাদুর আহ্ছানউল্লা (র.) এঁর নামে নামকরণের ঘোষণা দেন বর্তমান প্রধান শিক্ষিকা। বক্তাগণ আরো বলেন, নলতা কেন্দ্রীয় আহ্ছানিয়া মিশনের একান্ত সহযোগিতায় পীর কেবলার আদর্শ বিস্তারে এখান থেকে ফিরে রাজশাহীতে আহ্ছানিয়া মিশন চালু করা, বর্তমান প্রজন্মের ছেলে-মেয়েদের মাঝে বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ও পীর কেবলার বিষয়ে জ্ঞান লাভের জন্য সম্মলিত প্রচেষ্টায় পাঠ্যসূচীতে তাঁর জাবনাদর্শ অন্তর্ভুক্তিকরণ সহ বিভিন্ন বিষয়ের উপর গুরুত্বারোপ করেন।