খলিষখালিতে জামাত সন্দেহে চারজন আটক

নিজস্ব প্রতিনিধি: জামাত সন্দেহে খলিষখালির বিভিন্ন এলাকা থেকে চারজনকে আটক করেছে পুলিশ। আটককৃতদের মধ্যে একজন ভ্যানচালক, একজন রাজমিস্ত্রি, একজন দিনমুজুর ও একজন দোকানি। সোমবার অভিযান চালিয়ে তাদেরকে আটক করা হয়। পুলিশের দাবী আটককৃতদের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারী পরওয়ানা ছিল।
সোমবার দুপুর গনেশপুর বাজার এলাকা থেকে সাজ্জাত মোড়লকে আটক করে খলিষখালি ফাঁড়ি পুলিশ। সাজ্জাত মোড়লের বাড়ি মাগুরার বলরামপুর গ্রামে। আটককৃত সাজ্জাত মোড়লের স্ত্রী ফাতেমা বেগম জানান, তার স্বামী একজন ভ্যান চালক, চোখে কম দেখে, অনেকটা প্রতিবন্ধী। গত চার মাস আগে পুলিশ তাকে বাড়ি থেকে আটক করে। দীর্ঘ সাড়ে তিন মাস কারাভোগের পর উচ্চ আদালত থেকে জামিন পেয়ে গত মাসে সে জামিনে বের হয়। এতে তার অনেক টাকা খরচ হয়ে যায়। লোকের সাহায্যের টাকায় তার স্বামী মামলার খর বহন করে। বর্তমানে তার স্বামীর কোন মামলায় ওয়ারেন্ট ছিলনা।
সোমবার সকাল ১০টার দিকে একই ইউনিয়নের টিকারামপুর গ্রামের আনছার আলীর ছেলে রাজমিস্ত্রি গোলাম রসুলকে আটক করে পুলিশ। সকালে গ্রামে রাজমিস্ত্রির কাজ করার সময় পুলিশ তাকে আটক করে। তার নামেও কোন ওয়ারেন্ট ছিলনা বলে পরিবারটির এক সদস্য জানান।
খলিষখালির মঙ্গলানন্দকাটি গ্রামের আনছার দফাদারের ছেলে দিন মজুর আব্দুল কাদেরকে আটক করেছে পুলিশ। আটক করা হয়েছে একই ইউনিয়নের কাশিয়াডাঙ্গা গ্রামের দোকানদার রহমত আলীকে। আটককৃতদের বিরুদ্ধে কোন গ্রেপ্তারিপরওয়ানা ছিলনা বলে ভুক্তভোগীরা জানান।
এবিষয়ে খলিষখালি পুলিশফাঁড়ির আইসি হাফিজুর রহমান জনান, আটককৃতদের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরওয়ানা ছিল।