এমপি জগলুল হায়দারের মন্ত্রীত্বের দাবিতে কালিগঞ্জে বাংলাদেশ কলেজ শিক্ষক সমিতির সংবাদ সম্মেলন


প্রকাশিত : জানুয়ারি ৭, ২০১৯ ||

বিশেষ প্রতিনিধি: জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ১০৮, সাতক্ষীরা-৪ আসনের সংসদ সদস্য এস এম জগলুল হায়দারকে মন্ত্রীত্ব প্রদান করে এলাকার উন্নয়নে আরও বেশী ভূমিকা রাখার সুযোগ প্রদানের জন্য প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার প্রতি দাবি জানিয়ে কালিগঞ্জ রোকেয়া মনসুর মহিলা কলেজে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। রবিবার (৬ জানুয়ারী) বেলা সাড়ে ১২টায় বাংলাদেশ কলেজ শিক্ষক সমিতি (বাকশিস) কালিগঞ্জ ও শ্যামনগর উপজেলা শাখা আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে কালিগঞ্জ উপজেলা কলেজ শিক্ষক সমিতির সভাপতি রোকেয়া মনসুর মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ একেএম জাফরুল আলম বাবু বলেন,
সাতক্ষীরা-৪ আসন বাংলাদেশের সর্ববৃহৎ উপজেলা শ্যামনগর ও কালিগঞ্জের ৪টি ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত। এই এলাকাটি বাংলাদেশের অন্যতম অর্থনৈতিক সম্ভাবনাপূর্ণ এলাকা হিসেবে খ্যাত। বর্তমান আওয়ামী লীগ সরকার পরপর দুই মেয়াদে ক্ষমতায় থাকাকালে এই এলাকার বিভিন্ন ক্ষেত্রে অভূতপূর্ব উন্নয়ন সাধিত হয়েছে। তারপরও নানা কারণে এই অঞ্চল উন্নয়নের দিক দিয়ে কিছুটা পিছিয়ে রয়েছে। দক্ষিণ অঞ্চলের এই দু’টি উপজেলায় শিক্ষাক্ষেত্রসহ এখনও অনেক ক্ষেত্রে উন্নয়নের ছোয়া পাওয়ার বিশেষ প্রয়োজন।
লিখিত বক্তব্যে তিনি আরও বলেন, এসএম উন্নয়নের মহাসড়কে অবস্থান করছে বাংলাদেশ। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, ‘গ্রাম হবে শহর’। বাংলাদেশ হবে বিশে^র বুকে একটি উন্নত দেশ। ইতোমধ্যে জাতির জনকের সুযোগ্য কণ্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার মাধ্যমে এস এম জগলুল হায়দার অত্র অঞ্চলের চারটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান জাতীয়করণসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রেখেছেন। তাছাড়া তিনি দশম সংসদে এমপি থাকাকালীন সময়ে এ অঞ্চলের মানুষের কাছে আস্থার প্রতীক হিসেবে জনবন্ধু খ্যাতি পেয়েছে। এই অঞ্চলটি প্রাকৃতিক সম্পদের অপার সম্ভাবনাময় একটি স্থান। দেশের সিংহভাগ বৈদেশিক রাজস্ব আদায় হয়ে থাকে এ অঞ্চলের সাদাসোনা খ্যাত চিংড়ি রপ্তানীর মাধ্যমে। অথচ এই জনপদের মানুষ দীর্ঘদিন কোনো মন্ত্রীর ছোয়া পায়নি। সাতক্ষীরা-৪ আসনে বার বার নির্বাচিত জনবন্ধু খ্যাত সংসদ সদস্য এস এম জগলুল হায়দারকে মন্ত্রীসভায় স্থান দেয়া এই অঞ্চলের সর্বস্তরের মানুষের প্রাণের দাবি।
রোকেয়া মনসুর মহিলা কলেজের সহকারী অধ্যাপক ও রিপোর্টার্স ক্লাবের সভাপতি নিয়াজ কওছার তুহিন এর সঞ্চালনায় একই দাবিতে বক্তব্য রাখেন ডিআরএম ইউনাইটেড আইডিয়াল কলেজের অধ্যক্ষ শেখ আবুল বাশার, দক্ষিণ শ্রীপুর স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ আবু রাইহান সিদ্দিক, শ্যামনগর আতরজান মহিলা মহাবিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ আমির হোসেন, নওয়াবেঁকী মহাবিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ জুলফিকার আল মেহেদী লিটন, মুন্সীগঞ্জ ডিগ্রী কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ আব্দুল হামিদ, কালিগঞ্জ প্রেসক্লাবের সভাপতি শেখ সাইফুল বারী সফু, সহ-সভাপতি শেখ আনোয়ার হোসেন, সাধারণ সম্পাদক সুকুমার দাশ বাচ্চু প্রমুখ। এসময় বিভিন্ন কলেজের শিক্ষকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।