চাম্পাফুলে মহিলাকে ব্লাকমেইল করে অর্থ হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগ


প্রকাশিত : জানুয়ারি ১০, ২০১৯ ||

চাম্পাফুল (কালিগঞ্জ) প্রতিনিধি: কালিগঞ্জ উপজেলার চাম্পাফুলে সমিতির ম্যানেজার কর্র্তৃক এক মহিলাকে ব্লাকমেইল করে অর্থ হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগ উঠেছে। ঘটনার প্রেক্ষিতে ঐ মহিলা আশাশুনি উপজেলার গোঁদাড়া গ্রামের রশিদ গাজীর মেয়ে রেহানা পারভীন সাংবাদিকদের নিকট লিখিতভাবে অভিযোগ করেছেন। লিখিত অভিযোগে তিনি বলেন, কালিগঞ্জ উপজেলার উজিরপুর বাজারে অবস্থিত জাগ্রত সার্বিক গ্রাম উন্নয়ন সমবায় সমিতি হতে তার পিতা ৬০ হাজার টাক লোন নেন। বিভিন্ন তারিখে কিস্তি আকারে টাকা দিতে দিতে তার পিতা অসুস্থ হয়ে পড়েন। পিতার পক্ষে বাকি টাকা তিনি পরিশোধ করিতে রাজি হন এবং সে মোতাবেক টাকা লেনদেনের মাধ্যমে উক্ত সমিতির ম্যানেজার মিনারুলের সাথে তার পরিচয় হয়। মিনারুল তাকে বোনের পরিচয় দিতে থাকে। পরবর্তীতে মিনারুল বোনের সুযোগকে কাজে লাগিয়ে তার নিকট হতে দফে দফে ২ লক্ষ টাকা বাড়ি তৈরির জন্য হাওলাত স্বরুপ হাতিয়ে নেন। কিছু দিন অতিবাহিত হওয়ার পর তার টাকার প্রয়োজনে টাকা চাইতে গেলে তার উপর চড়াও হয়ে উঠে। এবং আমার সাথে সকল যোগাযোগ বন্ধ করে। রেহানা পরবর্তীতে অফিসে হাজির হয়ে পরিচালককে অবহিত করতেই মিনারুল অফিসের সকলের সামনে তাকে অকথ্য ভাষায় গালি গালাজ করে। পরবর্তীতে রেহানা তার পিতার ঋনের টাকা পরিশোদের রেজিষ্টার দেখতে চাইলে তা জমা হইনি বলে পরিচালক সুকেশ সরকার জানায় এবং বলতে থাকে তুমি টাকা চাইতে আসলে তার ফল ভাল হবেনা। ঘটনার প্রেক্ষিতে ঐ ম্যানেজার টাকার বিষয়ে আর কারও সাথে বললে তাকে বিভিন্ন কায়দায় শায়েস্থা করবে বলে হুমকি প্রদান করে। সার্বিক বিষয়টি নিয়ে সমিতির পরিচালক সুকেশ সরকারের নিকট জানতে চাইলে তিনি প্রতিনিধিকে বলেন, বিষয়টি আমি শুনেছি কিন্তু আমার কিছুই করার নেই। কারন মিনারুল রেহানা আপাকে বোন বলেছে তাদের ভিতর লেনদেন থাকতে পারে। তাই রেহানা পারভীন উক্ত বিষয়টি প্রসাশনের হস্থক্ষেপ কামনা করতে পারে।