সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন টাকা ধার দিয়ে ষড়যন্ত্রের শিকার কলারোয়ার দুই ভাই বোন


প্রকাশিত : মে ১০, ২০১৯ ||

নিজস্ব প্রতিনিধি: স্ট্যাম্পে লিখে টাকা ধার দিয়ে বিপাকে পড়েছেন কলারোয়ার দুই ভাই বোন। টাকা আদায়ে আদালতে মামলা করার পর দেনাদার চক্র এখন নানামুখি ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হয়েছে।
সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবে বৃহস্পতিবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে এসব কথা বলেন, সাতক্ষীরার কলারোয়া উপজেলার দেয়াড়া কাশিয়াডাঙ্গা গ্রামের রহমত আলী খানের ছেলে মো. আইয়ুব আলী খান ও তার চাচাতো বোন নারগিস খাতুন। নারগিস ওজিয়ার খানের মেয়ে।
তারা জানান, গত ৩০-০৭-২০১৮ তারিখে তিনশ টাকার নন জুডিশিয়াল স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর নিয়ে প্রতিবেশি অশোক কুমার, দীলিপ কুমার, নীল কুমার ও শচিন কুমারকে ৬ লাখ টাকা ধার দিই। শর্ত থাকে যে, তারা সাগরে মাছ ধরা শেষে ২৮-০২-২০১৯ তারিখে ৫০ হাজার টাকা লাভসহ মোট ৬ লাখ ৫০ হাজার টাকা ফেরত দিবে তারা। আর পরিশোধে ব্যর্থ হলে তাদের নামীয় দেয়াড়া মৌজায় জে এল ১০৬, এসএ খতিয়ান নং- ৯২২, দাগ নং- ৬৫৮৮ দাগে ৩২ শতক ও ৬৫৮৯ দাগে ২৯ শতকসহ ৬১ শতক সম্পত্তি মধ্যে হতে ৩৩ শতক জমি লিখে দেওয়ার অঙ্গীকার করে। কিন্তু অদ্যবধি টাকা ফেরত না দিয়ে টালবাহানা শুরু করে।
তারা আরো জানান, একই এলাকার সোহরাব খান, হারুন অর রশিদ এর কু-পরামর্শে দেনাদাররা টাকা পরিশোধ না করার পায়তারা করছে। তারা জানান, এব্যাপারে সাতক্ষীরা বিজ্ঞ আমলি আদালতে গত ১৫-০৪-২০১৯ তারিখে একটি মামলা দায়েরের পর দালাল চক্র ক্ষিপ্ত হয়ে কলারোয়া উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যানের কার্যালয় থেকে নোটিশ করিয়েছে স্ট্যাম্প উদ্ধারের জন্য। তারা মারপিট করে স্ট্যাম্প ছিনিয়ে নেওয়ারও ষড়যন্ত্র করছে। তারা জানান, নির্বাচনে নৌকা প্রতিকে কাজ করায় উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান শাহাজাদাকে দিয়ে দালাল চক্র তাদের ফায়দা হাসিলের চেষ্টা করছে। সংবাদ সম্মেলনে এ বিষয়ে পুলিশ সুপারসহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন এই দুই ভাই বোন।