রামপালে মাদকাসক্ত স্বামীর নির্যাতনে দিশেহারা এক গৃহবধূ


প্রকাশিত : জুলাই ১৭, ২০১২ ||

রামপাল (বাগেরহাট) প্রতিনিধি : রামপালের মাদকাসক্ত স্বামীর র্নিমম নির্যাতনের শিকার এক গৃহবধূ। অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, রামপালের হোগোলডাঙ্গা গ্রামের কুদ্দুস মল্লিকের পুত্র রুবেল মল্লিক এর সাথে ২ বছর আগে ধর্মীয় বিধান মতে একই ইউনিয়নের বড় নবাবপুর গ্রামের লেয়াকাত এর কন্যা রেশসা খাতুনের বিয়ে হয়। বিয়ের সমায় রেশমার দরিদ্র পিতা জামাইকে নগদ টাকা, স্বর্ণের গহনা ও অন্যান্য মালামাল সহ প্রায় ৫০ হাজার টাকা যৌতুক হিসাবে দেয়। বিয়ের পর থেকে স্বামী রুবেল প্রতিদিন রাতে নেশা করে বাড়ি ফিরে রেশমার উপর অমানুষিক নির্যাতন শুরু করে। মাদকাসক্ত পুত্রের কথা রেশমা তার শশুর আঃ কুদ্দুস ও শাশুড়িকে জানালে তারা নির্যাতনের মাত্রা বাড়িয়ে দেয়। তারপরও রেশমা তার স্বামীর সংসার ও নিজের ভবিষতের কথা ভেবে নির্যাতনের ঘটনা রেশমার পিতা-মাতাকে জানায় নি। গত ১ মাস আগে রেশমার পিতা ও ভাই এ খবর শুনে তাকে পিত্রালয়ে নিয়ে যায়। কয়েক দিন যেতে না যেতে মাদকাসক্ত স্বামী রুবেল শশুর বাড়ি গিয়ে জোরজবর দস্তি করে তার শরীরের বিভিন্ন অংশে কামড়ে ছিড়ে রক্তাক্ত করে। বিষয়টি জানাজনি হলে স্বামী ক্ষিপ্ত হয়ে পওে মোবাইলে রেশমাকে প্রাণনাশের হুমকি দেয়। এ ঘটনায় গত ৬ জুন বাগেরহাট জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ও পরিবারিক আদালাতে অভিযোগ দায়ের করেছে ওই গৃহবধূ। সংশ্লিষ্ট ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রেশমার উপর অত্যাচার নির্যাতনের ঘটনা সত্য বলে জানান।