কালিগঞ্জে বিষপানে যুবতীর আত্মহত্যা


প্রকাশিত : July 29, 2012 ||

বিশেষ প্রতিনিধি : কালিগঞ্জের বিষপানে আত্মহত্যা করেছে ইয়াসমিন (২৮) নামের এক যুবতী। সে উপজেলার মহিষকুড় গ্রামের ইসমাইল হোসেনে মেয়ে।

পুলিশ জানায়,  কালিগঞ্জের রতনপুর ইউনিয়নের মহিষকুড় গ্রামের ইসমাইল হোসেনের বিধবা মেয়ে ইয়াসমিন শুক্রবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে পরিবারের সদস্যদের অজ্ঞাতে বিষপান করে। বিষয়টি জানার পর চিকিৎসার জন্য সন্ধ্যা সাড়ে ৭ টার দিকে তাকে কালিগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। খবর পেয়ে পুলিশ মৃতদেহ উদ্ধার করে গতকাল ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করেছে। এব্যাপারে নিহতের মা জামিলা খাতুন বাদি হয়ে কালিগঞ্জ থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করেছে, যার নম্বর : ১৮। এদিকে নিহতের মামা জানান, মহিষকুড় গ্রামের আবুল হোসেনের ছেলে বানিউল (৩৬), আনোয়ার শেখের ছেলে আল-আমিন (২৬), রতনপুর গ্রামের ছবেদ আলী গাজীর ছেলে কাশেম আলী গাজী (৩৫), মসজিদ বাটি আব্দুস সাত্তারের ছেলে সোহেল রানা (১৮) পরস্পর যোগসাজশে যশোরের জনৈক যুবকের সাথে গত ২১ জুলাই পরিবারের সদস্যদের অজ্ঞাতে তার ভাগ্নি ইয়াসমিনের বিয়ে দেয়। ওই ছেলে আবুল কাশেমের বাড়িতে অবস্থান করে ইয়াসমিনের সাথে দৈহিক মেলামেশা করে। পরবর্তীতে বিষয়টি জানাজানি হওয়ার পর কাউকে কিছু না জানিয়ে ওই যুবক হঠাৎ এলাকা ছেড়ে চলে যায়। এঘটনায় মানসিকভাবে বিপর্যস্ত হয়ে ইয়াসমিন আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছে বলে জানান তিনি ।