খানজিয়া সীমান্তে ভারতীয় রুপি ও মোবাইল সিমসহ তথ্য পাচারকারি আটক


প্রকাশিত : ডিসেম্বর ১৯, ২০১২ ||

আহাদুজ্জামান আহাদ, নলতা: কালিগঞ্জের নলতার খানজিয়া সীমান্ত থেকে ভারতীয় রুপি, সিমকার্ড ও মোবাইলসহ  শাহাদাৎ হোসেন (২৪) নামের এক ব্যাক্তিকে আটক করেছে বিজিবি। তিনি উপজেলার নলতার মাঘুরালি গ্রামের পিয়ার আলী মিস্ত্রীর পুত্র।

মঙ্গলবার সকাল সাড়ে নয়টার দিকে নীলডুমুর ৩৪ বর্ডার গার্ডের আওতাধীন খানজিয়া ক্যাম্পের হাবিলদার সাইদুর রহমান খাঁনের নেতৃত্বে বিজিবি সদস্যরা খানজিয়া সীমান্তের একটি মৎস্য বাজার থেকে তাকে আটক করে। এসময় তার কাছ থেকে ১শ ভারতীয় রুপি, বাংলাদেশি ১৪শ ১৪ টাকা, ভারতীয় এয়ারটেল মোবাইল কোম্পানির একটি সীমকার্ড ও একটি চায়না কিংস্টার মোবাইল ফোন উদ্ধার করা হয়।

খানজিয়া ক্যাম্প কমান্ডার সাইদুর রহমান খাঁন জানান, আটককৃত শাহাদাৎ হোসেন একজন তথ্য পাচারকারি ও এলাকার কুখ্যাত মাদক ব্যবসায়ী। সে দীর্ঘদিন ধরে ভারতের বরুণহাট ক্যাম্প কমান্ডারের সাথে সখ্যতা গড়ে তুলে দেশের বিভিন্ন গোপন তথ্য পাচার করে আসছিল। এমনকি বিভিন্ন পত্রিকা ভারতীয় সীমান্তের বিএসএফ ক্যাম্পে পাচার করতো। তার ভয়ে এলাকার অনেক ভারতীয় গরু ব্যবসায়ী পালিয়ে আছে। তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন সময় ভারতীয় বিএসএফ’র কাছে গোপন তথ্য দিয়ে গরু ব্যবসায়ীদের ধরিয়ে দেয়ার অভিযোগ আছে। মঙ্গলবার সকালে সে পুনরায় গোপনে বরুণহাট ক্যাম্প কমান্ডারের সাথে কথা বলার সময় বিজিবি সদস্যরা তাকে আটক করে। এসময় তার মোবাইল কল লিস্টে খোঁজ করে ভারতীয় সীমান্তবর্তী বিভিন্ন বিএসএফ ক্যাম্পের নম্বরসহ ভারতের একাধিক ব্যক্তির মোবাইল নন্বর পাওয়া যায়। আটককৃত শাহাদাৎ হোসেনকে কালিগঞ্জ থানায় সোপর্দ করা হয়েছ্।ে এ ব্যাপারে বিজিবি’র হাবিলদার সাইদুর রহমান খাঁন বাদী হয়ে কালিগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করেছে।



error: Content is protected !!