দুর্বৃত্তদের ছোঁড়া গুলিতে আওয়ামী লীগ নেতাসহ দু’জন গুলিবিদ্ধ


প্রকাশিত : মে ১৩, ২০১৩ ||

ডেস্ক রিপোর্ট: দুর্বৃত্তদের ছোঁড়া গুলিতে এক আওয়ামী লীগ নেতাসহ দু’জন জখম হয়েছে। রোববার রাত সাড়ে ৮টায় সাতক্ষীরা সদর উপজেলার কুচপুকুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। তাদেরকে মারাত্মক জখম অবস্থায় সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
আহতরা হলেন, সাতক্ষীরা সদর উপজেলার আগরদাড়ি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহবায়ক ও কুচপুকুর গ্রামের নেছার আলীর ছেলে নজরুল ইসলাম (৫০) ও একই গ্রামের নেছার আলী সরদারের ছেলে আওয়ামী লীগ কর্মী আমজাদ আলী সরদার (৪৬)।
কুচপুকুর গ্রামের রফিকুল ইসলাম জানান, গত ২৮ ফেব্রুয়ারি দেলোয়ার হোসেন সাঈদীর ফাঁসির রায় ঘোষণার পর জেলা জুড়ে সহিংসতা শুরু হয়। জামায়াত শিবিরের নেতা-কর্মীরা তার ভাই নজরুলসহ চারজনের বাড়ি ভাঙচুর ও লুটপাট করে তাতে আগুণ ধরিয়ে দেয়। এরই জের ধরে গ্রামবাসী কদমতলা বাজারের জামায়াত কর্মী নূর আলীর ছেলে শহীদুল ইসলাম, ইমাদুল ও রেজাউলের বাড়ি ও ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠান আগুণ দিয়ে জ্বালিয়ে দেয়। এরপর থেকে এলাকায় তারা নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছিলেন। রোববার রাত সাড়ে আটটার দিকে বৃষ্টি পড়াকালিন কুচপুকুর মোড় থেকে বাড়ি ফেরার সময় দুর্বৃত্তরা নজরুল ও আমজাদকে লক্ষ্য করে উপর্যুপরি গুলি ছোঁড়ে। মারাত্মক আহত অবস্থায় তাদেরকে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। খবর পেয়ে সাতক্ষীরা পুলিশ সুপার ঘটনাস্থলে ছুঁটে যান।
সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. মারুফ হোসেন জানান, নজরুল ইসলামের পেটে ও ডান হাতে গুলি লেগেছে। আমজাদ হোসেনের পেট, বাম উরুসহ চারটি স্থান গুলিবিদ্ধ হয়েছে। তাদের অবস্থা আশঙ্কাজনক। তাদেরকে উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ এ- হাসপাতালে স্থানান্তরের পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।
পুলিশ সুপার মো. আসাদুজ্জামান জানান, অন্ধকার ও বৃষ্টির মধ্যে গুলি চালানোর ফলে দুর্বৃত্তদের চিনতে পারেননি আমজাদ ও নজরুল। অপরাধীদের ধরার জন্য প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে।