গরমে ত্বকের যতœ নেবেন যেভাবে


প্রকাশিত : April 30, 2014 ||

নেলী আফরিন <=> গরমকালের কড়া রোদ আপনার ত্বকের বেশি ক্ষতি করে। সান গ¬াস এবং ছাতা ছাড়া কড়া রোদে কখনোই বের হবেন না। এতে ত্বকের উপর কালো ছাপ পড়ে যায়। ত্বক হয়ে পড়ে শুকনো ও রুক্ষ। এছাড়া ধুলো জমে ত্বকের কোমলতা নষ্ট করে ফেলে। গরমের সময় ত্বককে নরম রাখুন এবং বাইরে বেরুবার সময় সানস্কিন বা ক্যালামাইন লোশন অবশ্যই লাগাবেন। ঠোঁট নরম ও চকচকে রাখুন। দিনের বেলা মুখে ময়েশ্চারাইজার লাগান এবং রাতে কোন ক্রিম হালকাভাবে মালিশ করুন। অতিরিক্ত ধুলো-ময়লার জন্য ত্বকের উপরের স্তরে মৃত কোষ জমে থাকে। যারজন্য ত্বক রুক্ষ ও শুষ্ক দেখায়। এগুলো দূর করতে আপনার সৌন্দর্যকে কমনীয় করে তুলতে সপ্তাহে অন্তত ৩ দিন মাস্ক লাগান। গরমের দিনে মাস্ক খুবই জরুরি।
বেসন ও দই এর মাস্ক
বড় এক চামচ বেসনের সাথে ২ চামচ দই মিশিয়ে মিশ্রণটি মুখে লাগিয়ে পনের/বিশ মিনিট হাত দিয়ে ঘষে ঘষে তুলে কুসুম গরম পানিতে ধুয়ে ফেলুন। মুখের ত্বক পরিষ্কার করা ছাড়াও ত্বককে করে তুলবে সতেজ ও মসৃণ।
মেকআপ কেমন হবে
গরমের সময় হালকা মেকআপ করুন। ত্বক পরিষ্কার ও টোনিং-এর পরে ফাউন্ডেশনের একটি হালকা প্রলেপ লাগান। আপনার স্বাভাবিক রঙÑএর সাথে রঙ মিলিয়ে ফাউন্ডেশন ব্যবহার করুন। গালে লাগান গোলাপী ব¬াশার। চোখে কাজলের সরু রেখা টানুন। সম্ভব হলে ওয়াটার প্র“ফ মাস্কারা লাগান। যাতে ঘামের সাথে গলে যাবার ভয় না থাকে। ঠোঁটে হালকা রঙের লিপস্টিক লাগান। গরমকালে ক্রীম লিপস্টিক লাগান। এতে আপনার ঠোঁট রুক্ষতার হাত থেকে রেহাই পাবে।
চুলের পরিচর্যা
অতিরিক্ত গরমে ঘামের জন্য চুল ভিজে চটচটে হয়ে পড়ে। তাই এসময় সপ্তাহে। অন্তত ৩ দিন শ্যাম্পু করুন। কন্ডিশনারযুক্ত শ্যাম্পু দিয়ে চুল পরিষ্কার করলে মশৃণ ও চকচকে হয়। গোসলের আগে মাথায় বাদাম বা জৈতুন তেল লাগিয়ে একটি কাপড় দিয়ে বেঁধে রাখুন আধাঘণ্টা। তারপর শ্যাম্পু করে কন্ডিশনার লাগান। গরমের সময় চুল বাঁধুন আটোসাটো করে এবং অবশ্যই তা ঘাড়ের বেশ কিছুটা উপরে। এতে গরম কম লাগবে।
পায়ের যতœ
গরমকালে রোদ ও ধুলোর পরিমাণ বেশি থাকে বলে পায়ের অযতœ খুব বেশি হয়। পায়ের পাতার ত্বকে কালো ছোপ পড়ে এবং ঘামের জন্য দূর্গন্ধও হয়। তাই প্রতিদিন গোসলের সময় পিউমিস সেটান দিয়ে ভালো করে পা ঘষে নিন। নখের ভেতর চারপাশ ভাল করে পরিষ্কার করুন। রাতে ঘুমুতে যাবার আগে কুসুম গরম পানিতে একটু লবণ দিয়ে পা দু’টি ডুবিয়ে রাখুন। কিছুক্ষণ পর তোয়ালে দিয়েশুকনো করে মুছে কোন ক্রিম মালিশ করুন। এটি অন্তত সপ্তাহে একদিন করুন। পা দু’টি পরিষ্কার করে নখ শেপ করে কাটুন। তারপরসময় অনুযায়ী হালকা রঙের নেইল পালিশ লাগান।
হাতের যতœ
সপ্তাহে একদিন মেনিকিউর করুন। বাড়িতে বসেই একাজটি করতে পারেন, নয়তো কোন বিউটি পার্লারে গিয়েও করাতে পারেন। গরমের সময় নখ ছোট করে কাটুন ও হালকা রঙের নেইল পালিশ লাগান।সব কাজ শেষে প্রতিবার ক্লিনজিং মিল্ক অথবা বেসন দই ইত্যাদি দিয়ে হাত পরিষ্কার করুন। এসময় হাতে বেশি জমকালো চুড়ি না পরাই ভাল।
বেশি করে পানি পান করুন
গরমের এ সময়টাতে নিয়ম করে ৮/১০ গ¬াস পানি খাওয়া খুবই দরকার। সময়ের ফল বা ফলের রস খান। আরো খাবেন ডাবের পানি।
গোসল
শরীরকে তাজা ও ঝরঝরে রাখতে যতোবার খুশি গোসল করতে পারেন। গোসলের পানিতে গোলাপ পানি বা লেবুর রস মিশিয়ে নিতে পারেন। গোসল শেষে ভাল করে ট্যালকম পাউডার ছড়িয়ে নিন সারা শরীরে। বগল পরিষ্কার রাখুন। বাইরে বেরুবার সময় ডিউডোরেন্ট ¯েপ্র করুন। হালকা সুগন্ধি ও হালকা রঙের সুতি কাপড় ব্যাবহার করুন। মুক্তা কিংবা রূপার গহনা পরুন। আপনাকে সতেজ ও সিন্ধ দেখাবে। আপনি অবশ্যই হয়ে উঠবেন সুন্দর ও কমনীয়। সেই সাথে মেনে চলবেন খাবারের নিয়মগুলোও। এসময় যথাসম্ভব তেলে ভাজা, ভুনা, চর্বিযুক্ত খাবার পরিহার করুন। হালকা মশলা, সবজি, সেদ্ধ আর সেই সাথে প্রচুর কাঁচা সালাদ, ফলের রস, দই, ফল ইত্যাদি খাবেন।