ফিংড়ীতে রাস্তার গাছ কেটে বিক্রি!


প্রকাশিত : ফেব্রুয়ারি ২৬, ২০১৭ ||

নিজস্ব প্রতিনিধি: সদর উপজেলার ফিংড়ীতে রাস্তার পাশের বড় বড় মেহগণি গাছ কেটে ১লক্ষ ৪৮হাজার টাকায় বিক্রি করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। ইউনিয়ন ভূমি অফিসের কর্মকর্তাকে ম্যানেজ করে সাবেক ইউপি সদস্য রেজাউল ইসলামের সহায়তায় এ গাছ বিক্রি হয়েছে বলে এলাকাবাসি জানান। ফিংড়ী গ্রামের মৃত মহাদেব সাহার পুত্র লক্ষীপদ সাহা গত বুধবার ফিংড়ী গ্রামের সিংহে পাড়ার সরকারি রাস্তার পাশে বড় বড় ২৭টি মেহগনি গাছ কেটে ধুলিহর বাড়ি সেলিম ব্যাপারির কাছে বিক্রি করেছে বলে এলাকাবাসি জানায়। লক্ষিপদ সাহার কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ২৭টি গাছ কাটা হয়েছে এর মধ্যে ৩টি সরকারি রাস্তার গাছ। বাকী ২৪টি আমার জমির মধ্যে লাগানো গাছ কাটা হয়েছে বলে স্বীকার করেছে। এ ব্যাপারে ফিংড়ী ইউনিয়ন ভূূমি কর্মকর্তা মো. মুনসুর আলীর কাছে মোবাইল ফোনে জানতে চাইলে তিনি বলেন, গাছ কাটার কথা জান্তে পেরে ঐদিনে অফিস থেকে ঘটনা স্থলে লোক পাঠানো হয়েছিল। ঘটনা স্থলে গেলে উপস্থিত সাবেক মেম্বর রেজাউল ইসলাম বলেন আমি যখন মেম্বর ছিলাম তখন লক্ষীপদ সাহার গাছ লাগানো জায়গার উপর  মাটি দিয়ে রাস্তা করেছি তাই লক্ষীপদ গাছ কেটেছে। এদিকে এলাকাবাসি আরো জানান, এছাড়া এ গাছ বিক্রি করার ২০দিন আগে সাধন সরদারের পুত্র বাসুদেব সরদার শুক্রবার ও শনিবার দক্ষিণ ফিংড়ীর সরকারি রাস্তার বড় বড় ২০টি মেহগনি গাছ কেটে মোটা অংকের টাকায় বিক্রি করেছে। এব্যাপারে উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেছে যাতে গাছপালার পরিবেশ ধ্বংস না হয়।