ঘোনায় দেনাদারের হামলায় মুক্তিযোদ্ধা আবুল কালাম আজাদ নিহত: আটক ৪


প্রকাশিত : ফেব্রুয়ারি ২৮, ২০১৭ ||

নিজস্ব প্রতিনিধি: সদর উপজেলার ঘোনা গ্রামে দেনাদার মোমিনুল ইসলামের হামলায় মুক্তিযোদ্ধা আবুল কালাম  আজাদ চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন। এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে পুলিশ ৪জনকে আটক করেছে। সোমবার রাত ৮ টার দিকে সদর উপজেলার ঘোনা বাজারে এই হামলার ঘটনা ঘটে।
মুক্তিযোদ্ধা আবুল কালাম আজাদ ঘোনা গ্রামের মৃত আব্দুল হামিদের ছেলে। অপরদিকে গ্রেপ্তারকৃতরা হলো একই গ্রামের মোমিনুল ইসলাম, ওয়াদুদ আলী, মুন্না হোসেন ও মো. রনি।
নিহত মুক্তিযোদ্ধার ছেলে আক্তারুল ইসলাম শিমুল জানান, তার পিতার ঘোনা বাজারে একটি রড সিমেন্টের দোকান আছে। স্থানীয় মোমিনুল ওই দোকান থেকে লক্ষাধিক টাকার মালামাল বাকি নেয়। সে টাকা দিতে টালবাহানা করতে থাকে। সোমবার রাত ৮টার দিকে ঘোনা বাজারে তার পিতা মোমিনুলের কাছে টাকা চায়। এতে মোমিনুল ক্ষিপ্ত হয়ে তার পিতাকে বেধড়ক মারপিট করে আহত করে। মারাত্মক আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে রাতেই সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হলে রাত আড়াইটার দিকে তিনি মৃত্যুবরণ করেন। এ ঘটনায় তিনি বাদী হয়ে ৭জনকে আসামী করে সাতক্ষীরা সদর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করলে পুলিশ চারজনকে আটক করেছে।
সাতক্ষীরা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি ফিরোজ হোসেন মোল্লা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ঘটনার সাথে জড়িতদের চারজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। বাকিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। অপরদিকে নিহত মুক্তিযোদ্ধার লাশ ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।