সাত কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে সাতক্ষীরায় স্টোর কিপার গ্রেফতার


প্রকাশিত : মে ২১, ২০১৭ ||

নিজস্ব প্রতিনিধি: হাসপাতালের সামগ্রী কেনার নামে টাকা আত্মসাতের অভিযোগে সাতক্ষীরা সিভিল সার্জন কার্যালয়ের স্টোর কিপার একেএম ফজলুল হককে গ্রেফতার করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। রবিবার  দুপুরে সিভিল সার্জন কার্যালয় থেকে দুদক এর উপ-পরিচালক আবুল হোসেনের নেতৃত্বে ছয় সদস্যের একটি দল তাকে গ্রেফতার করে।

তার বিরুদ্ধে ৭ কোটি ১০ লাখ ৪৩ হাজার ৭৪০ টাকা আত্মসাতের অভিযোগ পাওয়া গেছে। দুদকের জনসংযোগ কর্মকর্তা প্রণব কুমার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

সাতক্ষীরা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মারুফ আহম্মদ জানান, রবিবার সকালে দুদক খুলনা জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক মাহতাব উদ্দিন বাদী হয়ে স্টোর কিপার একেএম ফজলুল হক ও সাবেক সিভিল সার্জন ডা. সালেহ আহমেদের বিরুদ্ধে একটি মামলা করেন। তাদের বিরুদ্ধে সদর হাসপাতালে এমএসআর সামগ্রী কেনার জন্য ৭ কোটি ১০ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগ আনা হয়েছে। গ্রেফতার ফজলুল হককে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

সাতক্ষীরা সিভিল সার্জন ডা. তৌহিদুর রহমান বলেন, কয়েক মাস আগেও দুদকের আরও একটি মামলায় খুলনা থেকে ফজলুল হককে গ্রেফতার করা হয়। উচ্চ আদালত থেকে জামিন নিয়ে সে জোরপূর্বক দায়িত্ব নেওয়ার চেষ্টা করছিল। সাবেক সিভিল সার্জন উৎপল দেবনাথ তাকে যোগদান না করিয়েই অবসরে যান। এরপর আমি সিভিল সার্জন হিসেবে যোগদান করলে হাইকোর্টের সাসপেন্ড স্থগিতাদেশ এনে ফজলুল হক কাজে যোগ দেওয়ার চেষ্টা করলেও তার অপকর্মের কারণে দায়িত্ব বুঝিয়ে দেইনি। এরই মধ্যে দুদক আজ  আবারও তাকে গ্রেফতার করলো।