আশাশুনিতে ৩ দিন ব্যাপী উন্নয়ন মেলা সম্পন্ন


প্রকাশিত : জানুয়ারি ১৪, ২০১৮ ||

 

আশাশুনি ব্যুরো: আশাশুনিতে ৩ দিন ব্যাপী উন্নয়ন মেলা’১৮ সেরা পুরষ্কার প্রদানের মধ্য দিয়ে সম্পন্ন হয়েছে। শনিবার দিনভর উপজেলা পরিষদ ও উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে উপজেলা নির্বাহী অফিসার সুষমা সুলতানার নেতৃত্বে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক, কর্মচারী, ছাত্র-ছাত্রী, সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারী, সাংবাদিক, এনজিও প্রতিনিধি ও বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তাদের উপস্থিতিতে উপজেলা পরিষদ চত্বরে উন্নয়ন মেলায় জারি, বাল্যবিবাহ নিরোধে নাটক, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও রচনা প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। সব শেষে উপজেলা নির্বাহী অফিসার সুষমা সুলতানার সভাপতিত্বে ও রিসোর্স সেন্টার ইন্সট্রেক্টর মহিতোষ কর্মকারের পরিচালনায় স্টল প্রদর্শনীতে সেরা পুরষ্কার পেয়েছেন অফিস পর্যায়ে যুব উন্নয়ন অফিস, ইউনিয়ন পরিষদ পর্যায়ে আশাশুনি সদর ইউনিয়ন, অন্যান্য পর্যায়ে সাতক্ষীরা পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির পক্ষে আশাশুনি সাব জোনাল অফিস ও রচনা প্রতিযোগীতায় সেরা পুরষ্কার পেয়েছে তুলি পাল। সমাপনী বক্তব্য রাখেন, ইউএনও সুষমা সুলতানা। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, সদ্য যোগদানকারি সহকারি কমিশনার (ভূমি) মিজাবে রহমত, কৃষি সম্প্রসারন কর্মকর্তা রাজিবুল হাসান, মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার বাকি বিল্লাহ, উপজেলা প.প. কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর আলম, প্রকৌশলী আখতার হোসেন, সাতক্ষীরা পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির (আশাশুনি সাব জোনাল) এজিএম স্বপন কুমার পাল, পরিচালক ফেরদাউস আলম, যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা এসএম আজিজুল হক, আরডিও বিশ্বজিত কুমার ঘোষ, সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আব্দুল হান্নান, মফঃস্বল সাংবাদিক ফোরামের আহবায়ক এসএম আহসান হাবিব, বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি দপ্তরের প্রধানগন, শিক্ষক, স্থানীয় সাংবাদিক ছাত্র-ছাত্রীবৃন্দ ও বিভিন্ন শ্রেনী পেশার জনগন। মেলায় সরকারের উন্নয়ন ও সরকারী সহযোগিতা পেয়ে স্থানীয়ভাবে উন্নয়নের বিভিন্ন ভিডিও, স্থির চিত্র, ব্যানার, পোষ্টার, প্রকাশনা, প্রদর্শনী ও প্রতিষ্ঠানের উন্নয়নমূলক কার্যক্রম বিভিন্ন ভঙ্গিমায় উপস্থাপন করা হয়। প্রসঙ্গত: মেলায় প্রতিটি স্টল প্রতিদিন সকাল থেকে দিনব্যাপী খোলা এবং বিভিন্ন দাপ্তারিক সেবা প্রদান করার প্রতিশ্রুতি থাকলেও প্রকৃতপক্ষে তেমন কার্যক্রম পরিলক্ষিত হয়নি। উপজেলা পরিষদ ও উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে মেলা হলেও উপজেলা প্রশাসনের পক্ষে ইউএনও সুষমা সুলতানা কর্তৃক বিভিন্ন প্রকল্পের কার্যক্রম উদ্বোধন, পরিদর্শন ও উন্নয়ন কাজের সংক্ষিপ্ত চিত্র প্লাকাট ও ব্যানার মেলার আকর্শনীয় স্থানগুলোতে স্থান পেলেও উপজেলা পরিষদের পক্ষ থেকে সোলার স্থাপন ছাড়া কোন উন্নয়নমূলক কাজের উদ্বোধন, পরিদর্শন বা কার্যক্রমের ফিরিস্তি পরিলক্ষিত হয়নি। এ ছাড়া ৩ দিনের মেলায় অনেক ব্যানারধারী স্টলকে দেখা গেছে কোন কার্যক্রম প্রদর্শন ছাড়াই মাঝে মাঝে টেবিল চেয়ার নিয়ে সেই প্রতিষ্ঠানের ২/১ প্রতিনিধিকে বসে গল্প করতে। এতে অনেক নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক সচেতন মহল হতাশা প্রকাশ করেছেন।