যশোরে র‌্যাবের সাথে বন্দুক যুদ্ধে শিশু ধর্ষণকারী সন্ত্রাসী নিহত


প্রকাশিত : এপ্রিল ১০, ২০১৮ ||

 

যশোর প্রতিনিধি: যশোরে শিশু সোহেলী (৮) ধর্ষণ মামলার আসামি আলামিন ওরফে বাবু র‌্যাবের সাথে বন্দুকযুদ্ধে নিহত হয়েছেন। সোমবার ভোররাতে শহরতলীর ম-লগাতি এলাকায় এ ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনা ঘটে। এসময় ঘটনাস্থল থেকে অস্ত্র ও গুলি উদ্ধারের দাবি করেছে র‌্যাব। নিহত আলামিন এলাকায় অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী হিসেবে পরিচিত। তিনি খোলাডাঙ্গা কলোনিপাড়ার মৃত আবুল কালামের ছেলে।

র‌্যাব-৬ যশোর ক্যাম্পের কমান্ডার মেজর জিয়াউর রহমান জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তারা জানতে পারেন, ম-লগাতি এলাকায় কিছু সন্ত্রাসী অস্ত্র-গুলি নিয়ে অবস্থান করছে। এরপর তিনি ফোর্স নিয়ে রাত তিনটার দিকে অভিযান চালান। র‌্যাব সদস্যদের উপস্থিতি টের পেয়ে সন্ত্রাসীরা এলোপাতাড়ি গুলিবর্ষণ শুরু করে। এসময় র‌্যাব ও পাল্টা গুলি ছুড়লে সন্ত্রাসীরা পিছু হটে। রাত সাড়ে তিনটার দিকে ঘটনাস্থল তল্লাশি করে একজনকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় পাওয়া যায়। উদ্ধার করে যশোর জেনারেল হাসপাতালে আনলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। র‌্যাবের দাবি, ঘটনাস্থল থেকে একটি ওয়ান শুটারগান, এক রাউন্ড গুলি ও একটি ধারালো অস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে।

মেজর জিয়াউর রহমান জানান, অনুসন্ধানে জানা গেছে, আলামিন শিশু সোহেলী ধর্ষণ মামলার আসামি। গত ৩০ মার্চে আলামিন তার আপন ভাতিজি সোহেলিকে দাওয়াত খাওয়াতে নিয়ে যাবার কথা বলে খোলাডাঙ্গা এলাকার একটি মেহগিনি বাগানে নিয়ে ধর্ষণ করে। এরপর শিশুটিকে একজোড়া স্যান্ডেল কিনে দিয়ে বাড়ির পাশে রেখে যান। এ ঘটনায় পরের দিন কোতয়ালী থানায় তার বিরুদ্ধে মামলা হয়। মামলা নম্বর- ১১৭, তারিখ- ৩১.০৩.১৮।