জমে উঠেছে ধুলিহর ইউনিয়ন উপ-নির্বাচন


প্রকাশিত : মে ৮, ২০১৮ ||

 

শরিফুল ইসলাম: জমে উঠেছে সদর উপজেলার ৮নং ধুলিহর ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডের উপনির্বাচন। স্থানীয় ইউপি সদস্য ইউনিয়ন লীগের সভাপতি আমিনূল ইসলামের মৃত্যুজনিত কারণে উপনির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। ইতোমধ্যেই নির্বাচনের সব ধরণের প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। আগামী ১৫ মে উক্ত ওয়ার্ডে উপনির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

নির্বাচনে ৩জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বীতা করছেন। প্রার্থীরা হচ্ছেন, ওয়ার্ড যুবলীগের আহবায়ক স্থানীয় লীগ সমর্থিত প্রার্থী মো. মঈন হাসান (ফুটবল), নিতাই গাইন (আপেল) মো. মোস্তফা কামাল মকতুন  (মোরগ) প্রতীক নিয়ে শুরু করেছে নির্বাচনী প্রচার প্রচারণা। অপর একজন প্রার্থী মুজিবার রহমান তার প্রার্থীতা প্রত্যাহার করে নিয়েছেন।

এদিকে ধর্ষণ মামলার আসামী জামায়াত কর্মী মোস্তফা কামাল মকতুন এলাকায় প্রচার প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছে। সে নিজেকে জামায়াতের প্রার্থী হিসেবে জাহির করে ভোট আদায়ে চেষ্টা করছেন বলে জানান ভোটাররা। এনিয়ে এলাকায় ব্যাপক আলোচনা সমালোচনা শুরু হয়েছে। জানা গেছে, প্রার্থী মকতুনের ভাই সাইদুর রহমান জেলা জামায়াতের সক্রিয় কর্মী, তার চাচতো ভাই কবির আহম্মেদ ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি, জামাই মো. আজিজুল ইসলাম মাষ্টার ছাত্রলীগ নেতা মামুন হত্যা মামলার অন্যতম আসামী জেলা জামায়াতের সদস্য।

এব্যাপারের ধুলিহর ওয়ার্ডযুবলীগের আহবায়ক প্রার্থী মো. মঈন হাসান জানান, আমি জনগণের ভালবাসা নিয়ে জনপ্রতিনিধি হতে চাই। আমি একজন মুজিব সৈনিক। আমার যুবলীগের কর্মীরা এলাকাবাসির সহযোগীতা নিয়ে প্রচার প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছি।