কালিগঞ্জে বখাটের হাতে লাঞ্ছিত সেই স্কুল ছাত্রীর বিষপানে আত্মহত্যার চেষ্টা!


প্রকাশিত : জুন ৩০, ২০১৮ ||

নিজস্ব প্রতনিধি: জনসম্মুখে লাঞ্ছিত হয়ে থানায় অভিযোগ দেয়ার পর বখাটের পরিবারের পক্ষ থেকে ভয়ভীতি প্রদর্শন করায় বিষপানে আত্মহত্যার চেষ্টা চালিয়েছে কালিগঞ্জ পাইলট মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির সেই ছাত্রী (১৫)। বৃহস্পতিবার বেলা পৌনে ৩টার দিকে উপজেলা সদরের বাজারগ্রামের আফছার আলী সরদারের মাদকাসক্ত বখাটে ছেলে আলী আশরাফ ওরফে পুটু (২৪) শ্লীলতাহানীর ঘটনা ঘটায়। এ বিষয়ে বিকেলে নির্যাতিত ছাত্রী নিজে বাদী হয়ে থানায় অভিযোগ দিলে বখাটের মা ও স্বজনরা তাকে এবং তার অভিভাবকদের ভয়ভীতি প্রদর্শন করে। এতে ক্ষোভে দু:খে আত্মহত্যার উদ্দেশ্যে রাতে বিষপান করে ওই ছাত্রী। বিষপানের বিষয়টি নিশ্চিত করে ছাত্রীর ভগ্নিপতি সেলিম হোসেন জানান, বিষপান করার পরপরই জানতে পেরে চিকিৎসা করানোর ফলে সে বেঁচে গেছে। তবে তার অবস্থা এখনও শঙ্কামুক্ত নয়।
তিনি আরও বলেন, আলী আশরাফ পুটু এলাকায় চিহিৃত মাদকসেবী ও বখাটে হিসেবে পরিচিত। দীর্ঘদিন যাবত স্কুলে ও কোচিংয়ে যাতায়াতের পথে তার শ্যালিকাকে অশ্লীল প্রস্তাব দিতে থাকে পুটু। বৃহস্পতিবার বেলা ৩ টার দিকে সে তার এক সহপাঠি ও একই স্কুলের ৬ষ্ঠ শ্রেণির দু’জন ছাত্রীর সাথে প্রাইভেট পড়তে যাওয়ার সময় উপজেলা সদরের ফুলতলা মোড় মৎস্য সেটের পাশে মাটিতে ফেলে মুখমন্ডলসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে কামড় দেয় ও পোষাক ছিড়ে ফেলে। অন্য ছাত্রীরা ভয়ে চিৎকার করলে এলাকার লোকজন ঘটনাস্থলে এগিয়ে গেলে পুটু পালিয়ে যায়। শুক্রবার সন্ধ্যায় শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত মাদকাসক্ত বখাটে আলী আশরাফ পুটুকে পুলিশ গ্রেপ্তার করতে পারেনি।
থানার অফিসার ইনচার্জ হাসান হাফিজুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, মেয়েটির লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। এ ঘটনার সাথে জড়িত বখাটেকে আটকের সর্বাত্মক চেষ্টা চলছে। নারী নির্যাতন কিংবা যৌন হয়রানির সাথে জড়িতরা যতই প্রভাবশালী হোক কেউ ছাড় পাবে না। পরবর্তীতে ভুক্তভোগী ছাত্রী ও অভিভাবকদের ভয়ভীতি প্রদর্শন এবং বিষপানের ঘটনা সম্পর্কে কেউ অবগত করেনি বলে জানান তিনি।