কলারোয়ার সোনাবাড়িয়া হাইস্কুলে নেই সাইকেল শেড: বিপাকে শিক্ষার্থীরা


প্রকাশিত : জুলাই ৩১, ২০১৮ ||

কলারোয়া প্রতিনিধি: কলারোয়ার সোনাবাড়িয়া সম্মিলিত মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে নেই কোনো সাইকেল শেড। ১৯৬৭ সালে প্রতিষ্ঠিত ঐতিহ্যবাহী এ বিদ্যালয় ক্যাম্পাসে একটি সাইকেল শেড না থাকায় ছাত্র-ছাত্রীরা তাদের অতি প্রিয় ও প্রয়োজনীয় বাহন বাইসাইকেল নিয়ে পড়েছে মহা বিপাকে। স্কুল ক্যাম্পাসে সাইকেল শেড না থাকায় তাদের বাইসাইকেলগুলো রাখতে হচ্ছে স্কুল মাঠে খোলা আকাশের নিচে। প্রচন্ড রোদে ও বর্ষায় সেই বাইসাইকেলগুলো বাধ্য হয়েই রাখতে হচ্ছে সেখানে। খোলা জায়গায় এগুলো রোদে যেমন পুড়ছে আবার বর্ষায় ভিজছে। নতুন নতুন বাইসাইকেলগুলো একটি শেডের অভাবে নষ্ট হচ্ছে প্রতিনিয়ত। মঙ্গলবার দুপুরে এ স্কুলের কয়েকজন শিক্ষার্থীর সাথে কথা বলে জানা গেলো, শেড না থাকায় অনেক সময় রোদের তাপে সাইকেলের টিউব নষ্ট হয়ে যায়। বর্ষার পানিতেও সাইকেল বিকল হয়ে যায়। সারাদিন স্কুল শেষে বিকেলে ছুটির সময় বাইসাইকেল নেয়ার সময় দেখা যায়, তাতে হাওয়া নেই। বিকল সাইকেল মেরামত করিয়ে বাড়ি ফিরতেও শিক্ষার্থীদের অনেক সময় দেরি হয়ে যায়। মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মনিরা পারভীন এই বিদ্যালয় পরিদর্শনকালে খোলা আকাশের নিচে রাখা শিক্ষার্থীদের বাইসাইকেলগুলোর বেহাল দশা প্রত্যক্ষ করেন। একই সময়ে এই অবস্থা প্রত্যক্ষ করেন উপজেলা একাডেমিক সুপারভাইজার তাপস কুমার দাস ও উপজেলা সহকারী মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার হারুন-অর-রশিদ। প্রধান শিক্ষক আখতার আসাদুজ্জামান জানান, প্রতিদিনই ৫ শতাধিক বাইসাইকেল এবাবে খোলা আকাশের নিচে রাখতে হয় ছাত্র-ছাত্রীদের। জরুরী ভিত্তিতে এখানে একটি সাইকেল শেড নির্মাণ করা দরকার বলে প্রধান শিক্ষক উল্লেখ করেন। এ বিষয়ে আলাপকালে বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি ইউপি সদস্য নুরুল ইসলাম বলেন, তিনি দায়িত্ব নেওয়ার পরই বিষয়টি তাঁর দৃষ্টিগোচর হয়েছে। তিনি একটি সাইকেল শেড নির্মাণের জন্য প্রয়োজনীয় সব ধরনের উদ্যোগ গ্রহণ করেছেন বলে জানান।