অবৈধভাবে পাঁকা প্রাচীর নির্মাণ কাজ বন্ধের দাবিতে গৃহবধূর সংবাদ সম্মেলন


প্রকাশিত : ফেব্রুয়ারি ৩, ২০১৯ ||

নিজস্ব প্রতিনিধি: আদালতের আদেশ অমান্য করে স্থানীয় প্রভাবশালীরা এক ব্যক্তির জমিতে জোরপূর্বক পাঁকা প্রাচীর নির্মাণ করছে বলে অভিয়োগ উঠেছে। শনিবার দুপুরে সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে এই অভিযোগ করেন জেলার কালিগঞ্জ উপজেলার নারায়নপুর গ্রামের আব্দুল আজিজের স্ত্রী গৃহবধূ মোছা. জাহিদুন্নেছা।
সংবা সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, কালিগঞ্জ উপজেলার নারায়নপুর গ্রামের মো. আদর আলীর ছেলে প্রভাবশালী আবুল হোসেন মোড়ল আমার স্বামী ও তার ভাইদের রেকডীয় ও দীর্ঘদিন ধরে দখলীয় জমি দখলের জন্য তাদের নামে মিথ্যে ও হয়রানিমূলক মামলা দেয়াসহ বিভিন্নভাবে হুমকি দিয়ে আসছিল। একপর্যায় ২০১৮ সালের ২৫ ডিসেম্বর আমার স্বামী আব্দুল আজিজ ও দেবর রজব আলীকে মিথ্যে মামলায় জিড়য়ে আটক করে কারাগারে পাঠায়। এই সুযোগে আবুল হোসেন ও তার ভাই ছিদ্দিক মোড়লসহ একই গ্রামের এবাদুল ইসলাম, সিরাজুল ইসলাম, আজিজ মোড়ল, মোস্তাক মোড়ল, আলামিন মোড়ল, বরকত আলী গাজী, মোস্তাফিজুর রহমান,ফাতেমা বেগম সংঘবদ্ধ হয়ে ওই জম দখলের জন্য সেখানে ইট, বালু ও খোয়া ফেলতে থাকে। এঘটনায় আমরা গত ১৭ জানুয়ারী সাতক্ষীরার আদালতে পি-১৯/১৯(কালি) নং মামলা দায়ের করলে আদালত ফৌ.কা.বি. ১৪৫ ধারা মোতাবেক বিরোধীয় সম্পত্তিতে স্থিতি অবস্থা বজায় রাখার জন্য ওসি কালিগঞ্জ থাকাকে নির্দেশ দেন। সে মোতাবেক পুলিশ আদালতের আদেশ যথাযথভাবে পালন করে বিবাদীকে বিরোধীয় সম্পত্তিতে কোন কার্যক্রম না করার নির্ধেশ দেন।
তিনি অভিযোগ করে বলেন, আদালতের আদেশ ও পুলিশ প্রশাসনের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে অজ্ঞাত শক্তির বলে প্রভাবশালী আবুল হোসেন মোড়ল আমার স্বামী ও তার পরিবারের সদস্যদের জমি জবর দখল করে সেখানে পাঁকা প্রাচীর নির্মাণ কাজ শুরু করে। বিষয়টি কালিগঞ্জ থানাকে অবহিত করলে পুলিশ সরেজমিনে ঘটনাস্থলে গিয়ে কাজ বন্ধ করার জন্য বলেন। কিন্তু এর পরও আবুল হোসেন আদালত ও থানা পুলিশের আদেশ অমান্য করে আমাদের জমিতে পাঁকা প্রাচীর নির্মাণের কাজ চালিয়ে যাচ্ছে। তিনি তার স্বামী ও তার ভাইয়ের রেকডীয় ও দীর্ঘদিন ধরে দখলীয় জমিতে অবৈধভাবে পাঁকা প্রাচীর নির্মাণ কাজ বন্ধ করার জন্য পুলিশ সুপারসহ প্রশাসনের উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের জরুরী হস্তক্ষেপ কামনা করেন।