কালিগঞ্জের কৃষ্ণনগর উপ-নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ৪ জন ও সদস্য পদে ৪ জনের মনোনয়নপত্র বৈধ


প্রকাশিত : ফেব্রুয়ারি ৪, ২০১৯ ||

 

আফজাল হোসেন কৃষ্ণনগর, (কালিগঞ্জ): কৃষ্ণনগর ইউনিয়নের উপ-নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ৪ জন এবং সদস্য পদে ৪জনের মনোনয়নপত্র যাচাই বাচাই শেষে গতকাল ৩ ফেব্রুয়ারী ৮জনের মনোনয়ন পত্র বৈধ ঘোষণা করা হয়েছে। চেয়ারম্যান পদে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ইউনিয়ন সভাপতি মোস্তফা কবিরুজ্জামান মন্টু, জাতীয় পাটি থেকে প্রয়ত চেয়ারম্যান শহীদ কে.এম মোশাররফ হোসেনের স্ত্রী আকলিমা খাতুন (লাকী) এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসাবে কৃষ্ণনগর ইউপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান আব্দুর রহমান মোল্যা, সাবেক ইউপি সদস্য ও আওয়ামীলীগের ইউনিয়ন সহ-সভাপতি শেখ মুজিবর রহমান। রবিবার কালিগঞ্জ উপজেলার রির্টানিং অফিসার মনোনয়নপত্র যাচাই বাচাই শেষে বৈধ প্রার্থীদের নাম ঘোষণা করেন। উল্লেখ্য গত ৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮ কৃষ্ণনগর ইউপি চেয়ারম্যান কে.এম মোশাররফ হোসেন দুর্বৃত্তদের গুলিতে নিহত হওয়ায় চেয়ারম্যান পদ শূন্য হয়। এদিকে অত্র ইউনিয়নে ৩নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য আঃ জলিল গাইন মোশাররফ হোসেনের নিহতের মামলায় ১নং আসামী হওয়ায় তাকে আটক করে পুলিশ প্রশাসন। পরবর্তী পর্যায়ে তাকে অস্ত্র উদ্ধারে আনলে জনতা পুলিশের নিকট থেকে ছিনিয়ে নিয়ে পিটিয়ে নিহত করায় উক্ত ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য পদ শূন্য হওয়ায় উক্ত পদে প্রতিদ্বন্দিতা করার জন্য ডা. মোস্তাফিজুর রহমান (মনু), মো. আরব আলী, মো. সাইফুল ইসলাম, মো. ফারুক হোসেন মনোনয়ন পত্র জমা দেন। যাচাই বাচাই শেষে  ৪জনের মনোনয়ন বৈধ ঘোষণা করে রির্টানিং কর্মকর্তা। এবং উক্ত প্রার্থীদের প্রতীক সম্পর্কে কোন দ্বিমত না থাকায় সম্ভব্য প্রতীক হিসাবে ডা. মোস্তাফিজুর রহমান মনুকে টিউবওয়েল, মো. আরব আলী মোরগ, মো. সাইফুল ইসলাম ফুটবল, মো. ফারুক হোসেনকে তালা প্রতীক বরাদ্দ দেন বলে প্রার্থীদের নিকট থেকে জানা যায়। তপশীল অনুযায়ী আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারি অনুষ্ঠিত হবে উক্ত উপ-নির্বাচন সেই হিসাবে মনোনয়ন পত্র জমা দেওয়ার শেষ দিন ছিল ৩১ জানুয়ারী। যাচাই বাচাই ৩ ফেব্রুয়ারি, প্রত্যাহার ৯ ফেব্রুয়ারি, প্রতীক বরাদ্দের দিন ১১ফেব্রুয়ারি।