সামান্য বৃষ্টিতেই পানিবন্দী পলাশপোল সরদারপাড়ার বাসিন্দারা


প্রকাশিত : ফেব্রুয়ারি ২৮, ২০১৯ ||

নিজস্ব প্রতিনিধি: সামান্য বৃষ্টিতেই পানিবন্দী হয়ে পড়েছে শহরের পলাশপোল সরদারপাড়া (সংগ্রাম হাসপাতালের পশ্চিম দিকে) এলাকার বাসিন্দারা। একজন পুলিশ কর্মকর্তার পিতার স্বেচ্ছাচারিতার কারণে এধরণের দুর্যোগের সৃষ্টি হয়েছে বলে স্থানীয়রা অভিযোগ করেছেন।
এলাকাবাসি সূত্রে জানা গেছে, সেখানে রাস্তাগুলোর উপর হাঁটু পানি। ড্রেন এবং রাস্তা আটকে এক পুলিশ কর্মকর্তার পিতা আতাউর রহমান মেম্বর ইট, বালিসহ অন্যান্য সরঞ্জাম রাখায় এ জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। এলাকাবাসি তাকে বার বার মালামালগুলো সরিয়ে নেওয়ার জন্য অনুরোধ জানালেও তিনি কারো কথায় কর্ণপাত করেননি। তবে এলাকাবাসির দুর্ভোগ কমাতে বুধবার সকালে স্থানীয় কাউন্সিলর শেখ শফিক উদ দৌলা সাগর উপস্থিত থেকে পরিস্কার করে দিয়েছেন বলে জানা গেছে। ওই আতাউর রহমানের পুত্র পুলিশ কর্মকর্তা হওয়ায় প্রভাব খাটিয়ে কাউকে মূল্যায়ন করেন না। পৌরসভার নিষেধাজ্ঞাও অমান্য করে সেখানে ভবন তৈরি করছেন। পৌরসভার পক্ষ থেকে ওই ভবন নির্মাণের জন্য অনুমোদনও নেওয়া হয়নি বলে দাবি করেছেন।
এদিকে টানা ৩দিনের বৃষ্টিতে এলাকার একমাত্র রাস্তায় পানি জমে থাকার কারণে মধুমোল্লার ডাঙ্গী, সরদারপাড়া বিভিন্ন এলাকার স্কুলগামী শিক্ষার্থীসহ সাধারণ মানুষ চরম দুর্ভোগ পোহাতে হয়েছে। এলাকাবাসি এ ঘটনায় সাতক্ষীরা পুলিশ সুপারসহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।
এবিষয়ে কাউন্সিলর শেখ শফিক উদ দৌলা সাগর বলেন, পুলিশ কর্মকর্তার পিতা হওয়ায় তিনি কাউকে মূল্যায়ন করেন না। তবে এলাকাবাসির অভিযোগের ভিত্তিতে নিজে উপস্থিত থেকে বুধবার লোকজন নিয়ে মালামাল সরিয়ে দিয়ে মোটামুটি এক সুন্দর পরিবেশ সৃষ্টি করা হয়েছে। আপাতত কোন সমস্যা নেই।