দেবহাটার খেজুরবাড়িয়ায় দিনে দুপুরে সরকারি গাছ কেটে অন্যত্র সরিয়ে ফেলার অভিযোগ


প্রকাশিত : মার্চ ৩১, ২০১৯ ||

 

দেবহাটা সংবাদদাতা: দেবহাটার খেজুরবাড়িয়ায় দিনে দুপুরে সরকারি গাছ কেটে অন্যত্র সরিয়ে ফেলার অভিযোগ পাওয়া গেছে লিয়াকাত আলী নামের এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে। তিনি উপজেলার খেজুরবাড়িয়া গ্রামের মৃত আবু তাহের ওরফে তারা ডাক্তারের পুত্র। স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, পারুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের পশ্চিম পাশে খালের ধার দিয়ে ওয়াপদার রাস্তা কার্পেটিংয়ের কাজ চলছে। শনিবার অফিস ছুটি থাকার সুযোগ কাজে লাগিয়ে ঠিক দুপুরের দিকে তড়িৎ গতিতে কয়েকটি শিশুগাছ কর্তন করেন। গাছগুলো মাটিতে পড়ার সাথে সাথে কেটে টমটম ও ইঞ্জিনভ্যান যোগে দ্রুত অন্যত্র সরিয়ে ফেলেন। এ ব্যাপারে লিয়াকাত আলীর কাছে গাছ কাটার বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি জানান, আমি মামলা চালিয়ে ওয়াপদার কাছ থেকে জমির বন্দোবস্ত পেয়েছি। আমার জমির গাছ আমি কেটেছি তাতে কিসের অনুমতি লাগবে। অনেকেই তো কাটছে, তাহলে আমি কাটলে ক্ষতি কি। তবে, লিয়াকাত আলীর কাছে প্রথমে যোগাযোগ করা হলে তিনি ওয়াবদার কাছ থেকে গাছ কাটার অনুমতি আছে বলে জানান। কিন্তু তিনি কোন প্রমানপত্র দেখাতে পারেননি। এ বিষয়ে ওয়াপদা অফিসের ওয়ার্ক এ্যাসিসট্যান্ড জাহাঙ্গীর আলম জানান, কোন ব্যক্তি আমাদের কাছ থেকে অনুমতি নেয়নি। আমি সরেজমিনে ঘটনাস্থলে যাচ্ছি। তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।