অটিজম শিশুদের জন্য বিকল্প কর্মসংস্থান তৈরি করাই আমাদের লক্ষ্য: জেলা প্রশাসক


প্রকাশিত : এপ্রিল ৩, ২০১৯ ||

নিজস্ব প্রতিনিধি: ‘সহায়ক প্রযুক্তির ব্যবহার, অটিজম বৈশিষ্ট্য সম্পন্ন ব্যক্তির অধিকার’ প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে সাতক্ষীরায় বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবস পালিত হয়েছে। মঙ্গলবার সকালে জেলা প্রশাসন, জেলা সমাজসেবা অধিদপ্তর এবং প্রতিবন্ধী সেবা ও সাহায্য কেন্দ্রের আয়োজনে পোষ্ট অফিস মোড় হতে বর্নাঢ্য র‌্যালি বের হয়। র‌্যালিটি সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে জেলা শিল্পকলা একাডেমীতে আলোচনা সভায় মিলিত হয়। আলোচনা সভায় জেলা সমাজসেবা অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক দেবাশিস সরদারের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন জেলা প্রশাসক এসএস মোস্তফা কামাল। তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তাঁর কন্যা স্কুল সাইকোলজিস্ট সায়মা ওয়াজেদ পুতুলের নিরল চেষ্টায় এখন জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে অটিজম বিষয়ে সচেতনতা সৃষ্টি হয়েছে। অটিজম বিষয়ে আমাদের সকলকেই সচেতনতা বাড়াতে হবে। অনেক জেলায় প্রতিবন্ধীসহ বিভিন্ন ধরনের অনগ্রসর ব্যক্তিদের দেখেছি কিন্তু সাতক্ষীরা জেলা তাদের মধ্যে অনেক এগিয়ে রয়েছে। সাতক্ষীরায় অটিজম রয়েছে ৪৭ হাজার ৪১৮ জন। অটিজম শিশুরা সুযোগ পেলে অনেক ভাল কাজে সম্পৃক্ত হতে পারবে। তাদের জন্য বিকল্প কর্মসংস্থান এবং কর্মপরিবেশ তৈরি করাই আমাদের লক্ষ্য। জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে তাদের জন্য সব সময় সহযোগীতা অব্যাহত থাকবে।’ বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার দেবাশিস চেীধুরী, শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন জেলা সমাজসেবা অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক মো. হারুন অর রশিদ। সমগ্র অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন উপজেলা সমাজসেবা অফিসার মো. রোকনুজ্জামান। উপস্থিত ছিলেন শহর সমাজসেবা অফিসার শেখ সহিদুর রহমান, সমাজসেবা অধিদপ্তরের প্রবেশন অফিসার মিজানুর রহমান, প্রতিবন্ধী সেবা ও সাহয্য কেন্দ্রের কনসালটেন্ট ডা. এসএম হাবিবুর রহমান, বরসা’র সহকারী পরিচালক নাজমুল আলম মুন্না প্রমুখ। অনুষ্ঠানে প্রতিবন্ধীদের মাঝে ১ টি ট্রাই সাইকেল, ৮ টি হুইল চেয়ার, ১ জোড়া ক্রাচ এবং ১টা এলবো ক্রাস বিতরণ করাসহ ২৫টি পুরস্কার প্রদান করা হয়।