বুধহাটায় যাতয়াতের পথ বন্ধ ও ঘরে তালা ঝুলিয়ে দেওয়ার অভিযোগ


প্রকাশিত : মে ২১, ২০১৯ ||

পত্রদূত ডেস্ক: আশাশুনির বুধহাটায় একটি বাড়িতে যাওয়াতের পথে ঘেরাবেড়া ও ঘরে তালা ঝুলিয়ে দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ সময় বাড়ির লোকজনকে ঘর থেকে পিটিয়ে বের করে দেওয়া হয়েছে। সোমবার বেলা ১১টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। বুধহাটা ঋষিপাড়ায় জপমালা রানীর গীর্জায় যাতয়াতসহ মহল্লায় বসবাসকারীদের যাতয়াতের সুবিধার জন্য একটি ইটের সোলিং রাস্তা রয়েছে। এই রাস্তার পাশে বসবাস করে মৃত অরবিন্দ দাশের পুত্র কেনা দাশ। ঘরজামাই থাকা গোষ্ট উক্ত কেনার বাড়ির পাশে জমি কিনে ঘর করেছে। সেখানে যাতয়াতের জন্য সে কেনার বাড়ির উপর দিয়ে জোরকরে রাস্তা নিতে চায়। না দেওয়ায় গোষ্ট ও তার সহযোগি সত্য, চন্ডি, পঁচন ষড়যন্ত্র শুরু করে কেনার বাড়িতে যাতয়াতের পথে জোরপূর্বক বেড়া দিয়ে পথ বন্ধ করে দেয়। এদিকে প্রভাস ও সত্য দু’জনে একসাথে মদের ব্যবসা করে। প্রভাসকে তার শ^াশুড়ি এপথ থেকে ফিরিয়ে আনতে ঢাকায় পাঠিয়ে দিয়েছে। তার পার্টনার সত্য প্রভাসের কাছে লেনদেন আছে দাবী করে সোমবার বেলা ১১টার দিকে তাদের বাড়িতে যায়। প্রভাসকে না পেয়ে তার শাশুড়ি ও ৩ কন্যাকে তাদের ঘর থেকে বের করে দেয়। পরে তাদরেকে মারপিট করে ঘরে তালা ঝুলিয়ে দেয়। বিষয়টি ইউপি চেয়ারম্যান আ ব ম মোছাদ্দেককে অবহিত করলে তিনি গ্রাম পুলিশ পাঠিয়ে পথের ঘেরা ভেঙ্গে ও ঘরের তালা খুলে দেওয়ার ব্যবস্থা করেন। গ্রাম পুলিশ চলে যাওয়ার পর গোষ্ট ও তার সহযোগিরা পুনরায় তাদেরকে হুমকী ধামকী দিয়ে চলেছে। এব্যাপারে আইন প্রয়োগকারী সংস্থার আশু হস্তক্ষেপ কামনা করা হয়েছে।