জেলার প্রত্যন্ত অঞ্চলের গরীব অসহায় মানুষের মাঝে লিগ্যাল এইড’র সেবা পৌছে দিতে হবে: শেখ মফিজুর রহমান


প্রকাশিত : জুলাই ৩১, ২০১৯ ||

বদিউজ্জামান: জাতীয় আইনগত সহায়তা প্রদান সংস্থা সাতক্ষীরা জেলা কমিটির চেয়ারম্যান জেলা ও দায়রা জজ শেখ মফিজুর রহমান বলেন, জেলার প্রত্যন্ত অঞ্চলের গরীব অসহায় মানুষের মাঝে লিগ্যাল এইড’র সেবা পৌছে দিতে হবে। তিনি আরও বলেন, মামলা না করে আপোষের মাধ্যমে সমাজে শান্তি প্রতিষ্ঠার জন্য সকলকে কাজ করতে হবে।
বুধবার বেলা সাড়ে ৪টায় জেলা জজ শীপের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত লিগ্যাল এইড কমিটির মাসিক সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ সব কথা বলেন। সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোস্তফা পাভেল রায়হান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সদর সার্কেল মীর্জা সালাহউদ্দীন ও সিভিল সার্জন ডা. শেখ আবু শাহিন। এছাড়া বক্তব্য রাখেন, আইনজীবী সমিতির সভাপতি এম শাহ আলম, সাধারণ সম্পাদক তোজাম্মেল হোসেন তোজাম, সরকরি কৌশুলী সরকার যামিনি কান্ত, পাবলিক প্রসিকিউটার (পিপি) তপন কুমার দাস, জেল সুপার মো. আবু জাহেদ, তথ্য অফিসার মোজাম্মেল হক, এড. রঘুনাথ মন্ডল, এড. মনিরুদ্দীন, সাকিবুর রহমান প্রমূখ।
শেখ মফিজুর রহমান বলেন, লিগ্যাল এইড অফিসের প্রতি গরীব মানুষের আস্থা বাড়তে শুরু করেছে। তিনি গত মাসের তুলনায় এ মাসে দ্বিগুন (৭৫টি) আবেদন জমা পড়েছে উল্লেখ করে বলেন, গরীব মানুষ আইনি সেবা পাচ্ছে বলেই লিগ্যাল এইড অফিসে আসতে শুরু করেছে। তিনি আরও বলেন, গরীব মানুষ কেবল সরকারি খরচে মামলা চালানোর জন্য লিগ্যাল এইড অফিসে আসছেন না, তারা আসছেন- মামলা না করে আপোষের মাধ্যমে বিরোধ নিস্পত্তির জন্য। তিনি চলতি মাসে ৩১টি আপোষ মিমাংসার আবেদন জমা পড়েছে উল্লেখ করে বলেন, এর মধ্যে সফলভাবে নিষ্পত্তি হয়েছ ৬টি। এছাড়া ৫৯ জনকে আইনি পরামর্শ দেওয়া হয়েছে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।
সমগ্র অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন জেলা লিগ্যার এইড কর্মকর্তা ও সিনিয়র সহকারি জজ সালমা আক্তার।



error: Content is protected !!