তালায় ১৬ বছরের দখলীয় সম্পত্তি জোর পূর্বক দখলের চেষ্টা এবং খুন জখমের হুমকির অভিযোগে সংবাদ সম্মেলন


প্রকাশিত : August 7, 2019 ||

পত্রদূত ডেস্ক: তালায় দীর্ঘ ১৬ বছরের দখলীয় সম্পত্তি জোর পূর্বক সীমানা প্রাচীর নির্মাণ করে দখলের চেষ্টা এবং খুন জখমের হুমকির প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার দুপুরে সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবে এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন, তালা উপজেলার মোবারকপুর গ্রামের মৃত আমিন উদ্দীন মোড়লের ছেলে ভুক্তভোগী আব্দুর রহমান মোড়ল।
তিনি তার লিখিত বক্তব্যে বলেন, আমি বিগত ১৬ বছর পূর্বে মোবারকপুর মৌজায় ২১৪ দাগে ১৩ শতক জমির মধ্যে ৫ শতক এবং ৩২৭ দাগে ২২ শতক সম্পত্তি ক্রয় করে শান্তিপূর্ণভাবে ভোগ দখল করে আসছি। কিন্তু সম্প্রতি গত তিন বছর পূর্বে একই এলাকার আকবর আলী সরদারের ছেলে আসলাম সরদার একই দাগে ১৩ শতক সম্পত্তির মধ্যে ৮ শতক সম্পত্তি ক্রয় করেন। কিন্তু তার পাশে থাকা আরো ২৬ শতক এনিমি সম্পত্তি সরকারের রাজস্ব ফাঁকি দিয়ে ভোগ দখল করে আসছেন। আসলাম বর্তমানে তার ৮ শতক ও এনিমি ২৬ শতক সম্পত্তি ছাড়াও আমার ক্রয় করা ৫ শতক সম্পত্তিও জবর দখলের পায়তারা চালাচ্ছেন। এছাড়া কালিয়া গ্রামের মজিদ মোড়লের ছেলে লুৎফর মোড়ল ৩২৭ দাগের আমার ক্রয় করা ২২ শতক সম্পত্তিও দখলের পায়তারা শুরু করেছেন। এরই জের ধরে ৭ আগষ্ট বুধবার সকাল ৮ টার দিকে আসলাম ও লুৎফর মোড়লের নেতৃত্বে প্রায় শতাধিক ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসী বাহিনী ধারালো অস্ত্র শস্ত্র নিয়ে আমার ক্রয় করা ৫ শতক সম্পত্তি দখলের উদ্দেশ্যে জোর পূর্বক প্রাচীর নির্মানের চেষ্টা চালায়। এতে আমি বাধা দিতে গেলে তারা আমাকে বেধড়ক মারপিট করতে থাকে। এ সময় আমার ভাইয়ের ছেলে নাজমুল মোড়ল ও আমার ছেলে রাজু আহমেদ এগিয়ে আসলে তাদেরকেও তারা বেধড়ক মারপিট করে এবং প্রাচীর নির্মাণ অব্যাহত রাখেন। আমি কোন উপায় না পেয়ে স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের সহযোগিতায় তালা থানা পুলিশকে অবহিত করলে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে তাদের প্রাচীর নির্মাণ কাজ বন্ধ করে দেয়। তবে তারা প্রাচীর নির্মাণের কাজ বন্ধ রাখলেও তারা আমাদের জান ও মালের ক্ষতির হুমকি প্রদর্শন করছেন এবং বলছেন এই সম্পত্তির উপর আসলে তোদের খুন করে লাশ গুম করে দেবো।
তিনি আরো বলেন, আমার সম্পত্তি দখলের জন্য আসলাম তালা উপজেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে পেশাদার ক্যাডার ও চিহ্নিত সন্ত্রাসীদের ভাড়া করে আনেন। কিন্তু পুলিশের কঠোর অবস্থানের কারনে তাদের উদ্দেশ্যে সফল হয়নি। তারপরও আমি আশংকা করছি তারা উল্লেখিত দখলদার আসলাম ও লুৎফর তার ভাড়াটিয়া বাহিনী দিয়ে আমার রেকর্ডীয় সম্পত্তি জোর করে দখলসহ আমাদেরকে ক্ষতি সাধন করতে পারেন। এমতাবস্থায় আমি আমার রেকর্ডীয় সম্পত্তি রক্ষা এবং আমাদের জীবনের নিরাপত্তার দাবীতে সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপার ও তালা উপজেলা নির্বাহি অফিসারসহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করছি। সংবাদ সম্মেলনে এ সময় তার সাথে আরো উপস্থিত ছিলেন, তারা ছেলে খুলনা বিএল বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের মাষ্টার্সের ছাত্র রাজু আহম্মেদ।