কালিগঞ্জে ডেঙ্গু পরিস্থিতি নিয়ে পর্যালোচনা সভা করলেন জেলা প্রশাসক মোস্তফা কামাল


প্রকাশিত : আগস্ট ৩০, ২০১৯ ||

নিয়াজ কওছার তুহিন: সম্মিলিত প্রচেষ্টার মাধ্যমে ডেঙ্গু প্রতিরোধ করার লক্ষ্যে সরকারি কর্মকর্তা, গণমাধ্যমকর্মী, ইউপি চেয়ারম্যান, ইউপি সদস্য, ইউনিয়ন ভূমি কর্মকর্তা, ন্যাশনাল সাভির্সের কর্মী, গ্রামপুলিশ সদস্যদের নিয়ে কালিগঞ্জে পর্যালোচনা সভা করেছেন সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক এসএম মোস্তফা কামাল। শুক্রবার সন্ধ্যা ৭ টায় উপজেলা নির্বাহী অফিসারের সভা কক্ষে পর্যালোচনা সভায় তিনি বলেন, সকলকে স্ব-স্ব জায়গা থেকে আন্তরিক হয়ে প্রতি বাড়িতে বাড়িতে যেয়ে মশক নিধনে পরিস্কার পরিচ্ছনাতার কাজে অংশ নিতে বলেন। আত্মতৃপ্তির জন্য নয়, বরং মানুষের স্বার্থে কাজ করতে হবে। স্প্রে মেশিন ক্রয় করে আগামী ৩ দিনের মধ্যে কালিগঞ্জের সকল স্থানে ডেঙ্গুর লার্ভা ধ্বংস করে স্বাভাবিক অবস্থানে ফিরিয়ে আনতে হবে। তা নাহলে কালিগঞ্জ ভয়াবহ ঝুঁকির মধ্যে পড়বে। এসময় উপস্থিত ছিলেন এনডিসি সজল মোল্লা, জেলা তথ্য অফিসার মোজাম্মেল হক। ডেঙ্গু পরিস্থিতি বর্ণনা ও সম্ভাব্য করণীয় সম্পর্কে মতামত উল্লেখ করে বক্তব্য রাখেন কালিগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারমান সাঈদ মেহেদী, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসার ডাঃ শেখ তৈয়েবুর রহমান, অফিসার ইনচার্জ (ওসি) হাসান হাফিজুর রহমান, প্রেসক্লাবের সভাপতি শেখ সাইফুল বারী সফু, সহ-সভাপতি শেখ আনোয়ার হোসেন, সাধারণ সম্পাদক সুকুমার দাশ বাচ্চু, নলতা ইউপি চেয়ারম্যান আজিজুর রহমান পাড়, রতনপুর ইউপি চেয়ারম্যান আশরাফুল হোসেন খোকন, বিষ্ণুপুর ইউপি চেয়ারম্যান শেখ রিয়াজ উদ্দীন, কুশুলিয়া ইউনিয়নের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারমান সিরাজুল ইসলাম, নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান মেখ এবাদুল ইসলাম, কৃষ্ণনগর ইউপি চেয়ারম্যান আকলিমা খাতুন লাকী, ধলবাড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান গাজী শওকাত হোসেন, চাম্পাফুল ইউপি চেয়ারম্যান মোজাম্মেল হক গাইন, মথুরেশপুর ইউপি চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান গাইন, মৌতলা ইউপি’র ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান খলিলুর রহমান প্রমুখ।
এর আগে জেলা প্রশাসক মোস্তফা কামাল বিকেল ৫ টা থেকে উপজেলার মৌতলা ও কুশুলিয়া ইউনিয়নের বিভিন্ন জায়গায় গণসংযোগ ও লিফলেট বিতরণ করেন। সন্ধ্যায় কালিগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স পরিদর্শন করেন এবং ডেঙ্গু রোগে আক্রান্ত ৬জন রোগীর চিকিৎসা বিষয়ে খোঁজখবর নেন। পরিদর্শনকালে উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সাঈদ মেহেদী ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সরদার মোস্তফা শাহিন উপস্থিত ছিলেন। কালিগঞ্জ উপজেলায় এ পর্যন্ত ৮৯ জন ডেঙ্গু রোগী চিকিৎসা নিয়েছেন। এর মধ্যে কালিগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ৬১জন এবং অন্যান্যরা সাতক্ষীরায় চিকিৎসা নিয়েছেন বলে জানা গেছে।