অনৈতিক কাজে লিপ্ত থাকায় ছেলের হাত ধোলাই খেলেন শোভনালীর ইউপি সদস্য


প্রকাশিত : অক্টোবর ২৪, ২০১৯ ||

শেখ হেদায়েতুল ইসলাম: আশাশুনি উপজলার শাভনালী ইউনিয়নর ৬নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য, কামালকাটি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক এবং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ সভাপতি উদায় কান্তি বাছাড় অনৈতিক কাজে লিপ্ত থাকা অবস্থায় মহিলার ছেলের হাতে ধোলাই খেয়ে এ যাত্রায় রক্ষা পেলেন। ঘটনাটি ঘটেছে গত সোমবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় শোভনালী ইউনিয়নের কামালকাটি এলাকায়। বিষয়টি নিয়ে এলাকার চায়ের দোকান থেকে শুরু করে সর্বত্র চলছে আলোচনা-সমালোচনা। এ ঘটনাটি অত্র এলাকায় টপ অবদ্যা ঘটনায় পরিণত হয়েছে। সমাজে মানুষ গড়ার কারিগর, সমাজ প্রতিনিধি এবং ক্ষমতাশীল রাজনৈতিক দলের স্থানীয় পর্যায়ের সভাপতি কর্তৃক এমন ঘৃণীত কাজ করায় এলাকাবাসির মধ্যে বিষয়টি নিয়ে বিরুপ প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয়েছে।  এলাকার কয়েকজন ব্যক্তি জানান, গত সোমবার সন্ধ্যায় লম্পট উদায় কান্তি স্থানীয় এক বিধবা মহিলার বাড়িতে গিয়ে তার সরলতার সুযোগ নিয়ে, ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে জোরপূর্বক অনৈতিক কর্মকান্ড লিপ্ত হয়। এ অবস্থায় হঠাৎ বিধবার ছেলে বাড়িতে গিয়ে দেখতে পায় লম্পট উদয় কান্তি বাছাড়ের অপকর্মের দৃশ্য। এসময় মহিলার ছেলে লম্পট উদায় কান্তি বাছাড়কে হাতে নাতে আটক করে মারধর করতে থাকে। এসময় তার আত্ম চিৎকার পাশ্ববর্তী লোকজন ছুটে আশার আগে কৌশলে লম্পট উদায় কান্তি বাছাড় ঘটনা স্থল ত্যাগ করেন। এরপর থেকে লম্পট উদায় কান্তি বাছাড় ও অসহায় বিধবা মহিলা বাড়ি ছেড়ে অন্যত্র চলে গেছে বলে জানা গেছে। এঘটনার আগে উক্ত উদয় কান্তি বাছাড় তার শিক্ষা প্রতিষ্ঠান রাতের অন্ধকারে অন্য আরেক মহিলার সাথে অনুরুপ অনৈতিক কর্মকান্ড ঘটিয়ে ছিলো বলে জানান স্থানীয়রা। এ ব্যাপারে উদয় কান্তি বাছাড়ের মোবাইল ফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হলেও যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি। উদয় কান্তি বাছাড়কে আইনের আওতায় নিয়ে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবী জানিয়েছেন সচেতন এলাকাবাসি।