কলারোয়ায় আড়াই লাখ টাকা চাঁদার দাবীতে সার ব্যবসায়ীর প্রতিষ্ঠানে হামলা ভাংচুর লুটপাট: আহতএক


প্রকাশিত : নভেম্বর ৬, ২০১৯ ||

মনিরুল ইসলাম মনি: কলারোয়ায় যুবলীগনেতা পরিচয় দিয়ে ২ লাখ ৫০ হাজার টাকার চাঁদার দাবীতে সার ব্যবসায়ীর ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা-ভাংচুর ও লুটপাটের ঘটনা ঘটেছে। এসময় ওই প্রতিষ্ঠানের ম্যানেজারকে দোকান থেকে অপহরণ করে তাদের টর্চার সেলে নিয়ে বেধড়ক মারপিট করা হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে, গত ৩ নভেন্বর সন্ধ্যা ৭টার দিকে উপজেলার চন্দনপুর ইউনিয়নের গয়ড়া বাজারে। এ ঘটনায় কলারোয়া থানায় ৭জনের নাম উল্লেখ্য করে একটি এজাহার দায়ের হয়েছে। থানা পুলিশের এসআই রইচউদ্দীন অভিযোগ পেয়ে মঙ্গলবার বিকালে ঘটনা স্থান পরিদর্শন করেন। বুধবার সকালে কলারোয়ার বিসিআইসি ডিলার মেসার্স রহমান ট্রেডার্স এর মালিক মফিজুর রহমান সাংবাদিকদের জানান-তার উপজেলার গয়ড়া বাজারে মেসার্স রহমান ট্রেডার্স নামে একটি সার বিক্রয়ের দোকান আছে। ওই দোকান দেখাশুনা করেন তারই মামাতো ভাই রোকনুজ্জামান। গত ৩ নভেম্বর সন্ধ্যা ৭টার দিকে ওই এলাকার চিহ্নত চাঁদাবাজ ডালিমের নেতৃত্বে  ইয়াছিন আলী, আবুজার, হিমেল, মামুন, সোহাগ হোসেন, সাজ্জাদ হোসেন ১০/১২জনের একটি দল তার ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানে ঢুকে আড়াই লাখ টাকা চাঁদা করে। এসে রোকনুজ্জামান টাকা দিতে অস্বীকার করলে তারা ক্ষিপ্ত হয়ে দোকানের ভিতরে ঢুকে ব্যাপক ভাংচুর করে ক্যাশ ড্রয়ার ভেঙে সার বিক্রয় করা নগদ ২ লাখ ২২ হাজার ৮শত টাকা নিয়ে নেয়। এসময় তারা আরো ৩০ হাজার টাকা চাঁদার দাবীতে দোকান থেকে রোকনুজ্জামানকে তুলে নিয়ে গয়ড়া বাজারের যুবলীগে অফিস নামের এক ঘরে নিয়ে বেধড়ক মারপিট করে  তার একটি আঙ্গুল ভেঙে দেয়। পরে বাজারের লোকজন ও স্থানীয় জনগণ বিষয়টি নিয়ে ওই স্থানে জড়ো হলে তারা রোকনুজ্জামানকে ছেড়ে দিয়ে পালিয়ে যায়। পরে আহত সার ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানের ম্যানেজার রোকনুজ্জামান (৪৫) কে স্থানীয়রা দ্রুত উদ্ধার করে কলারোয়া সরকারি হাসপাতালে ভর্তি করেন। এ বিষয়ে কলারোয়া থানার অফিসার ইনচার্জ শেখ মুনীর-উল-গীয়াস জানান-সারের দোকানে হামলার ঘটনায় একটি এজাহার পেয়েছি। তদন্তপূর্বক দোষী ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। এদিকে অভিযুক্ত ডালিমের সেল ফোন বন্ধ থাকায় তার মন্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।